• ঢাকা
  • শনিবার, ১৫ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৮ জানুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

অপশ‌ক্তির ষড়যন্ত্র রাজপথে মোকাবিলার ঘোষণা ১৪ দলের


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: সোমবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৪৬ পিএম
সোমবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহান বিজয় দিবস ও শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস আলোচনা সভা

মোহাম্মদ রু‌বেল

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও কেন্দ্রীয় ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু বলেছেন,‘বিএনপি জামায়াতের কোনো ষড়যন্ত্রই সফল হবে না। ‘যেকোনো ষড়যন্ত্র রুখতে ১৪ দল প্রস্তুত।’ 

তি‌নি ঐক‌্যবদ্ধভা‌বে রাজপথে অপশক্তি মোকাবিলার ঘোষণা দেন। 

সোমবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহান বিজয় দিবস ও শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন ।

আমির হোসেন আমু বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের চেতনা লালন করে না বলেই বিজয়ের মাসে বিশৃঙ্খলার চেষ্টা করে বিএনপি। কিন্তু সফল হয়নি।’

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ফজলে নুর তাপস বলেন, ‘১৪ দলের নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধে সব শক্তি আজ ঐক্যবদ্ধ। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ আজ এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের এই অগ্রগতির পথ যারা রুখতে চাইবে বাংলার মাটি থেকে তাদের চিরতরে নির্মূল করবো। এটিই হোক আজকের শপথ।’

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য কামরুল ইসলাম এমপি বলেন, ‘বিএনপি জামায়াত অপশক্তি ষড়যন্ত্র করে দেশকে পেছনের দিকে নিতে চায়। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সকল শক্তিতে ইস্পাত কঠিন ঐক্য গড়ে তুলতে হবে। তারা গণতন্ত্রকে হত্যা করতে চায়।’

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীর বিক্রম বলেন দেশকে এগিয়ে নিতে , ‘বারবার দরকার শেখ হাসিনার সরকার। স্থিতিশীল সরকারকে অস্থিতিশীল করতে ষড়যন্ত্র করার চেষ্টা করেছিল বিএনপি-জামাত। কিন্তু সফল হতে পারেনি। ষড়যন্ত্র করলে মোকাবিলা রাজপথেই হবে।’

জাতীয় পাটি-জেপির সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম বলেন, 
 
বিএনপি বলছে নির্বাচন হতে দেবে না। নির্বাচন না হলে যে কী হয়? ১/১১ এ সেটা কি তারা দেখেনি। এত তাড়াতাড়ি ভুলে গেল! নির্বাচন না হলে কেউ শান্তিতে থাকতে পারবে না।’

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পাটির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হাসান বাদশা বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি ঐক্যবদ্ধ হলে জামায়াত-বিএনপি বাংলাদেশের মাটি থেকে নিশ্চিহ্ন হয়ে যাবে।’

জাসদ সাধারণ সম্পাদক শিরিন আক্তার বলেন, ‘একাত্তরের পরাজিত শক্তির সঙ্গে কোনো আপস নেই। তাদের যে কোনো ষড়যন্ত্র রুখে দিতে হবে।’

সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া বলেন, ‘দেশ আজ দুই ভাগে বিভক্ত। একদিকে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধে পক্ষের শক্তি। আর অন্যদিকে স্বাধীনতাবিরোধী শক্তির নেতৃত্ব দিচ্ছে বিএনপি। দেশের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সব প্রগতিশীল শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে।’

এ সময় মঞ্চে জাতীয় পার্টি জেপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ূন কবির, সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদসহ ১৪ দল ও মহানগর আওয়ামী লীগের নেতারাও উপস্থিত ছিলেন।

ঢাকানিউজ২৪.কম / এমআর

রাজনীতি বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image