• ঢাকা
  • রবিবার, ১০ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ; ২৩ জানুয়ারী, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

আশুলিয়ায় শ্রমিক নেতাকে অপহরণ, রাজু’র বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: সোমবার, ০২ আগষ্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১২:৪৫ এএম;
রাজু’র  বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ
থানায় অভিযোগ

শাকিল শেখ, উপজেলা প্রতিনিধি, সাভার(ঢাকা):   আশুলিয়ার সেই বির্তকিত রাজু’র আহমেদের  বিরুদ্ধে রতন হোসেন মোতালেব নামে এক শ্রমিক নেতাকে তুলে নিয়ে নিজের গোডাউনে আটকে রেখে মারধরের অভিযোগ উঠেছে।

এঘটনায় শনিবার রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে ব্যবসায়ী রাজু আহমেদের গোডাউন থেকে অপহৃত ওই  শ্রমিক নেতাকে উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এর আগে সকালে শ্রমিক নেতার স্ত্রী সুলতানা পারভীন বাদি হয়ে বিষয়টি জানিয়ে সাভার মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অপহৃত শ্রমিক নেতার নাম মোঃ রতন হোসেন মোতালেব (৩১)। সে ঢাকার ধামরাই উপজেলার মাকুলিয়া গ্রামের বাসিন্দা। তিনি সাভার-আশুলিয়ার তৈরী পোশাক শ্রমিকদের নিয়ে কাজ করতেন।

লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে শুক্রবার রাত পৌনে ১০ টার দিকে মোঃ রতন হোসেন মোতালেবকে কলমা এলাকার নিজ ভাড়া বাসার সামনে থেকে ৪/৫ জন সন্ত্রসাী একটি সাদা রংয়ের হায়েছ গাড়িতে করে তুলে নিয়ে যায়। এরপর থেকে তার ব্যবহৃত নাম্বারগুলো বন্ধ পাওয়া গেছে। অনেক খুঁজাখুজির পর শনিবার সকালে আশুলিয়ার গৌরিপুর এলাকায় ব্যবসায়ী রাজু আহমেদের বাড়িতে রতন হোসেন মোতালেবকে আটকে রাখার সন্ধান পাওয়া যায়। পরে বিষয়টি জানিয়ে দুপুরে সাভার মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন অপহৃতের স্ত্রী সুলতানা পারভীন।

উদ্ধার হওয়া শ্রমিক নেতা রতন হোসেন মোতালে বলেন, আশুলিয়ার রাজু মার্কেট এলাকার ব্যবসায়ী রাজু গ্রুপের চেয়ারম্যান রাজু আহমেদের দেহরক্ষি আব্বাস আমাকে বাসা থেকে ডেকে নিয়ে কথা বলার এক পর্যায়ে জোরপূর্বক রাজুর গাড়িতে করে তুলে নিয়ে যায়। পরে আমাকে রাজু আহমেদের একটি সিমেন্টের পাইপের গোডাউনে আটকে রেখে প্রথমে লোকজন দিয়ে মারধর করে এবং পরে রাজু নিজেও এসে আমাকে মারধর করে এবং আমাকে মেরে ফেলার জন্য তার লোকদেরকে আদেশ দেয়।

তবে এবিষয়ে জানতে রাজু গ্রুপরের চেয়ারম্যান ব্যবসায়ী রাজু আহমেদের মুঠোফোনে কয়েকবার কল করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি। পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম হোয়াটসঅ্যাপে এ বিষয়ের সত্যতা চেয়ে একটি খুদে বার্তা পাঠানো হলে তিনি জানান, রতন এখন পুলিশ ক্যম্পে আছে। গতকাল আমি ঢাকার বাইরে ছিলাম।

সাভার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী মাইনুল ইসলাম শ্রমিক নেতাকে উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন এঘটনায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম /

অপরাধ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image