• ঢাকা
  • শনিবার, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২১ মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

আখাউড়া আগরতলা স্থলবন্দর দিয়ে পেঁয়াজ আমদানি শুরু


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ২২ মার্চ, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১২:৫৫ পিএম
আসন্ন রমজান সামনে রেখে স্থলবন্দর
পেঁয়াজ আমদানি শুরু

নিউজ ডেস্ক:    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায়  দীর্ঘ আট মাস বন্ধ থাকার পর আসন্ন রমজান সামনে রেখে স্থলবন্দর দিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে।

রোববার বিকাল পর্যন্ত এ বন্দর দিয়ে চারটি ট্রাকে ৬০ টন ভারতীয় পেঁয়াজ বাংলাদেশে প্রবেশ করে। রাতেই বাংলাদেশি একাধিক ট্রাকে করে চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জ পাইকারি বাজারে নিয়ে যাওয়া হয়। এ পথে আরও ১৪০ টন পেঁয়াজ বাংলাদেশে প্রবেশের অপেক্ষায় রয়েছে।

প্রতি টন পেঁয়াজ ৩১০ ডলারে শুল্কায়ন করা হয়েছে। প্রথম দফায় ৬০ টন পেঁয়াজ আমদানিতে দেড় লাখের বেশি সরকার রাজস্ব পেয়েছে। এদিকে দীর্ঘ আট মাস পর আবারও পেঁয়াজ আমদানি শুরু হওয়ায় কর্মচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে আখাউড়া  স্থল বন্দরে।

পেঁয়াজ আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান আখাউড়া স্থলবন্দরের সোয়েব ট্রেড ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী রাজীব উদ্দিন ভূঁইয়া  বলেন, আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে দীর্ঘ আট মাস বন্ধ থাকার পর ইম্পোর্ট পারমিট (আইপি) পাওয়ায় রোজাকে সামনে রেখে আবারও ভারত থেকে পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে। এক সপ্তাহ পর পেঁয়াজের দাম কমে আসবে বলে মনে করছেন ওই ব্যবসায়ী।

তিনি আরও বলেন, প্রথম দফায় চারটি ভারতীয় ট্রাকে করে ১২৯০টি বস্তায় ৬০ টন ৬০০ কেজি পেঁয়াজ বাংলাদেশে আনা হয়েছে। ভারতের অন্ধপ্রদেশ  থেকে ওই পেঁয়াজ ত্রিপুরার আগরতলা রেলওয়ে স্টেশনে আনা হয়।

পরে ট্রেন থেকে আনলোড করে ট্রাকে আগরতলা বন্দর হয়ে আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে পেঁয়াজ ভারতীয় ট্রাকে বাংলাদেশের আখাউড়া স্থলবন্দরে আনা হয়।

আখাউড়া স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষের উপসহকারী পরিচালক (ট্রাফিক) মোস্তাফিজুর রহমান জানান, রোববার বিকাল পর্যন্ত মোট চারটি পেঁয়াজবাহী ট্রাক ভারত থেকে বন্দরে প্রবেশ করেছে। এতে ১২৯০ বস্তায় ছয় হাজার কেজি পেঁয়াজ রয়েছে। পেঁয়াজ আমদানি শুরু হওয়ায় বন্দরে শ্রমিক কর্মচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে। বন্দরের মাসুল আদায়ও বাড়ছে।

আখাউড়া স্থলবন্দরের রাজস্ব কর্মকর্তা শাহ্ নোমান সিদ্দিকী জানান, প্রথম দফায় ৬০ টন পেঁয়াজ আমদানিতে সরকার রাজস্ব পেয়েছে এক লাখ ৬৫ হাজার টাকা। আমদানি বাড়লে রাজস্ব আয়ও বাড়বে বলে কাস্টমসের ওই কর্মকর্তা মনে করেন।

পূর্ব-উত্তর ভারতের সঙ্গে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দর সীমান্তপথে আন্তঃবাণিজ্য সম্প্রসারণে ১৯৯৪ সালে আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে চালু হয় আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য। এর পর এই স্থলবন্দর দিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো ভারতের অন্ধপ্রদেশ  থেকে ২০০ টন পেঁয়াজের মধ্যে ১২৯০ বস্তায় ৬০ টন (৬ হাজার কেজি) পেঁয়াজ আমদানি করা হয়েছে। আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে গম আমদানিও করা হচ্ছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম /

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image