• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০৬ ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

 ইউরোপের দেশগুলোতে ফুরিয়ে আসছে গ্যাস


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শনিবার, ০৫ নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:২২ এএম
 ইউরোপে দেশগুলোতে
ফুরিয়ে আসছে গ্যাস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: যুক্তরাজ্যের হাতে যে গ্যাস আছে তা দিয়ে আর মাত্র নয় দিন চলবে। ফ্রান্স আরও প্রায় চার মাস চলতে পারবে। জার্মানির এখনও ৮৯ দিনের গ্যাস রয়েছে। ইউরোপের দেশগুলোতে দ্রুতই ফুরিয়ে আসছে গ্যাস। 

ইউরোপে শীতকাল অতি সন্নিকটে। শীতকে ঘিরে গ্যাস মজুত শুরু করে দিয়েছে ইউরোপীয় দেশগুলো। এদিকে মজুত গ্যাস সর্বনিম্ন স্তরে ঠেকেছে যুক্তরাজ্যে। ব্রিটিশ গ্যাস কর্তৃপক্ষ বলেছে, যুক্তরাজ্যের মাত্র ৯ দিন চলার মতো গ্যাস বাকি আছে। এই শীতে ঘাটতি হলে ব্রিটিশরা তিন ঘণ্টার পরিকল্পিত বিদ্যুতের ঘাটতির মুখোমুখি হতে পারে।

ডেইলি মিররের প্রতিবেদনে বলা হয়, শীতের আগে একটি গ্যাসের বড় একটি স্টোরেজ সাইট ফের চালু করেছে যুক্তরাজ্য। ব্রিটেনের বৃহত্তম গ্যাস ও বিদ্যুৎ সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান সেন্ট্রিকা বলেছে, ইউরোপের অন্যান্য দেশের তুলনায় যুক্তরাজ্যের গ্যাসের মজুত নিম্নস্তরে রয়েছে। অন্যদিকে ইউরোপের অন্যান্য দেশের মধ্যে জার্মানির গ্যাস রয়েছে ৮৯ দিনের, ফ্রান্সের ১০৩ দিনের ও নেদারল্যান্ডসের ১২৩ দিনের।

সেন্ট্রিকা গত সপ্তাহে জানায়, নর্থ সি অঞ্চলে ‘রাফ’ নামে একটি গ্যাসক্ষেত্র ফের সচল করেছে তারা। এর ফলে যুক্তরাজ্যের গ্যাস ক্ষমতা ৫০ শতাংশ বৃদ্ধি পাবে বলে মনে করা হচ্ছে। এর সাহায্যে আসন্ন শীতকালটা ভালো করেই পার করতে পারবে বলে প্রত্যাশা ব্রিটিশদের।

সেন্ট্রিকা গ্রুপের এক শীর্ষ কর্মকর্তা বলেন, ‘আমরা আনন্দিত যে এই শীতের জন্য স্টোরেজ অপারেশনে ফিরে আসতে পেরেছি। আমাদের দীর্ঘমেয়াদি লক্ষ্য রাফ গ্যাসক্ষেত্রটিকে বিশ্বের বৃহত্তম মিথেন ও হাইড্রোজেন স্টোরেজ সুবিধায় পরিণত করা ও যুক্তরাজ্যের জ্বালানি সুরক্ষাকে শক্তিশালী করা।

তিনি আরও বলেন, ‘স্বল্পমেয়াদে আমরা মনে করি রাফ যখন উদ্বৃত্ত থাকে তখন প্রাকৃতিক গ্যাস সঞ্চয় করে ও দেশের ঠান্ডা ও সর্বোচ্চ চাহিদার সময় যখন এটির প্রয়োজন হয় তখন এই গ্যাস উৎপাদন করে আমাদের জ্বালানি ব্যবস্থাকে সাহায্য করে। এটি দীর্ঘস্থায়ী ব্যাকআপ না দিলেও এই শীতটা ভালোভাবে পার করতে সাহায্য করবে।

ন্যাশনাল গ্রিড ইএসও (ইলেকট্রিসিটি সিস্টেম অপারেটর) এই শীতে গ্যাসের ঘাটতি দেখা দিলে ব্রিটিশরা তিন ঘণ্টা করে লোডশেডিংয়ের মুখে পড়তে পারে বলে সতর্ক করার পরে এই ঘোষণা দেয়া হয়। 

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আর্ন্তজাতিক বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image