• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২২ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০৭ অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

শাওনের সঙ্গে আর্থিক প্রতারণা, গ্রেপ্তার ১


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শুক্রবার, ২৬ আগষ্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১২:৫৫ পিএম
তা ছাড় করাতে 'অর্থ মন্ত্রণালয়ের
মেহের আফরোজ শাওন

নিউজ ডেস্ক:  ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়ার নাম ব্যবহার করে কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের সহধর্মিণী মেহের আফরোজ শাওনের সঙ্গে প্রতারণা করে টাকা হাতিয়ে নেওয়া চক্রের এক সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগ-ডিবি। গত বুধবার রাতে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ এলাকা থেকে রবিউল ইসলাম নামে ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়। গত মে মাসে নুহাশ পল্লী উন্নয়নের জন্য বিদেশি ফান্ড ছাড় করাতে ৩১ হাজার ৮৫০ টাকা হাতিয়ে নিয়েছিলেন ওই প্রতারক।

ডিবির সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগের সদস্যরা জানান, শাওন গত মে মাসে অপরিচিত নম্বর থেকে ফোন পেয়েছিলেন। তা রিসিভ করতেই অপরপ্রান্ত থেকে পরিচয় দিয়ে বলা হয়, তিনি ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া। এতে শাওনও দেখান আগ্রহ। এরপর ডেপুটি স্পিকার পরিচয় দিয়ে তাকে জানানো হয়, নুহাশ পলল্গীর উন্নয়নের জন্য অস্ট্রেলিয়া থেকে একটি বড় ফান্ড এসেছে। তা ছাড় করাতে 'অর্থ মন্ত্রণালয়ের এক উপ সচিবের' নম্বরও দেওয়া হয়। সেই নম্বরে যোগাযোগ করা হলে উপ সচিব পরিচয় দেওয়া ব্যক্তি বিদেশে ফান্ড স্থানান্তরের জন্য ট্যাপ বাবদ ৩১ হাজার ৮৫০ টাকা মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে দিতে বলেন। তিনি সরল বিশ্বাসে ওই টাকা দিয়ে ফের উপ সচিব পরিচয় দেওয়া ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ করলে ফোনটি বন্ধ পেয়ে বুঝতে পারেন প্রতারণার শিকার হয়েছেন। ওই ঘটনায় পরে ধানমন্ডি থানায় মামলা হয়।

বৃহস্পতিার ঢাকা মহনগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (গোয়েন্দা) মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ বলেন, গ্রেপ্তার রবিউল প্রতারক চক্রের সদস্য। সে ২০১৯ সাল থেকে বিভিন্ন কৌশলে সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিদের নম্বার সংগ্রহ করে তাদেরকে সংসদের ডেপুটি স্পিকার, কখনো বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুন্সী ও বিভিন্ন মন্ত্রনালয়ের সচিব পরিচয় দিয়ে ফোন করতো। বিদেশি অনুদান প্রাপ্তির প্রলোভন দেখিয়ে সরকারি ভ্যাট ট্যাপ ও প্রসেসিং ফি বাবদ মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যেমে অর্থ হাতিয়ে নিয়ে মোবাইল ফোন বন্ধ করে দিতো। এভাবে এই প্রতারক শতাধিক মানুষের কাছ থেকে কয়েক কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

মেহের আফরোজ শাওন বলেন, প্রতারক রবিউল ফোন করে এমনভাবে কৌশলে কথা বলেছে যে তিনি প্রতারণা ধরতে পারেননি। এভাবে যাচাই না করে টাকা পাঠানো ভুল হয়েছে বলে পরে বুঝতে পারেন।

ঢাকানিউজ২৪.কম /

অপরাধ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image