• ঢাকা
  • শনিবার, ১৫ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৮ জানুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

এসএসসিতে শতভাগ ফেল করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বাড়ায় উদ্বেগ


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বুধবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১২:৪০ পিএম
এসএসসিতে শতভাগ ফেল করা
প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বাড়ায় উদ্বেগ

নিউজ ডেস্ক : চলতি বছর এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় একদিকে শতভাগ ফেলা করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বৃদ্ধি, অন্যদিকে পাস করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা কমে যাওয়াসহ ফলাফলের কয়েকটি সূচকের নিম্নগামিতাকে উদ্বেগজনক বলেছেন শিক্ষাবিদ ও অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক।

শিক্ষার্থী নয় বরং শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও শিক্ষা ব্যবস্থার নানা ত্রুটির কারণেই ফলাফলের বিভিন্ন সূচকে এ উদ্বেগজনক পরিস্থিতি বলে তিনি উল্লেখ করেন। আর সে কারণেই অবনমনের কারণ চিহ্নিত করার পাশাপাশি ব্যবস্থা গ্রহণের পরামর্শ তার।

তিনি আরও বলেন, অদম্য স্পৃহা আছে আমাদের শিক্ষার্থীদের। এ যে ৫০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সেখান থেকে কেউ পাস করেনি; এটা একেবারেই গ্রহণযোগ্য নয়। কোথায় দুর্বলতা আছে, কেন এ দুর্ঘটনাটা ঘটলো, এটাকে আমি দুর্ঘটনাই বলবো। সেই কারণেই এটা গভীরভাবে তদন্ত হওয়া দরকার, কমিটি করা দরকার। কমিটি করে যেখানে দুর্বলতা আছে, সেখানে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া দরকার। যাতে এটার পুনরাবৃত্তি না ঘটে।       

গত সোমবার (২৮ নভেম্বর) এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা করে রাজধানীর মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, ফলাফল বিপর্যয়ের জন্য কোনো ব্যবস্থা নয়, বরং এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মানোন্নয়নে নেয়া হবে বিশেষ উদ্যোগ। তবে একই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বারবার ফলাফল বিপর্যয়ে জড়ালে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়ার কথাও জানান তিনি।

মন্ত্রী আরও বলেন, ওইসব স্কুলে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নয়, আমরা চাই কতটা সহযোগিতা দিয়ে, কোথায় ঘাটতি আছে, সেটাকে কীভাবে পূরণ করা যায়, সেটা করে যেন আমরা সবাইকে একসঙ্গে নিয়ে আসতে পারি সেই চেষ্টা করতে হবে। আমি এমন কোনো প্রতিষ্ঠান চাই না, যে প্রতিষ্ঠান থেকে একজনও পাস করবে না।

চলতি বছর এসএসসির ফলাফলে শতভাগ ফেল করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা গতবারের তুলনায় তিনগুণ বেড়েছে। আর অর্ধেকে নেমেছে শতভাগ পাস করা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা।

গত সোমবার প্রকাশিত চলতি বছরের মাধ্যমিক ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফলে গত বছরের তুলনায় জিপিএ-৫ বাড়লেও ৬ শতাংশ কমেছে পাসের হার। এছাড়াও এবারের ফলাফলের বেশ কয়েকটি সূচকই নিম্নগামিতা দেখা গেছে। বিশ্লেষণে দেখা যায়, একজনও পাস করেনি এমন প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা গত বছর ১৮টি থাকলেও এবার তা প্রায় তিনগুণ বেড়ে ৫০টিতে পৌঁছেছে। শুধু তাই নয়, আশঙ্কাজনক হারে কমেছে শতভাগ পাস করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যাও। ২০২১ সালে যার সংখ্যা ছিল ৫ হাজার ৯৯৪টি, এবার তা ২ হাজার ৯৭৫টিতে নেমে এসেছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

শিক্ষা বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image