• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৯ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০২ ফেরুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

দেশে ফেরা হলো না সজীবের, সৌদির সড়কে ঝরল প্রাণ


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:১৭ এএম
দেশে ফেরা হলো না
সজীবের সৌদির সড়কে ঝরল প্রাণ

বিজয় কর রতন, মিঠামইন (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ ছয় বছর আগে সৌদি আরবে পাড়ি জমান কিশোরগঞ্জের সজীব মিয়া। কিছু দিনের মধ্যে বাড়িতে ফিরে আসার কথা ছিল তার। এর আগেই সড়ক দুর্ঘটানার প্রাণ হারিয়েছেন তিনি। 

সোমবার (২৮ নভেম্বর) বিকালে নিহতের বড় বোন মরিয়ম বেগম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। রবিবার (২৭ নভেম্বর) মধ্যরাতে সৌদি আরবের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত সজীব মিয়া কিশোরগঞ্জের নিকলী উপজেলার শাহাপুর-মাইজহাটি এলাকার বাবুল মিয়ার ছেলে। 

পরিবার সূত্র জানায়, ছয় বছর আগে সৌদি আরবে পাড়ি জমান সজীব মিয়া। সেখানে একটি কোম্পানিতে চাকরি করতেন। কিছু দিনের মধ্যে বাড়িতে আসবেন বলে পরিবারের সদস্যদের জানিয়েছিলেন তিনি। তার আগেই পাড়ি জমালেন না ফেরার দেশে। সজীবের বড় বোন মরিয়ম বেগম জানান, কয়েকদিন আগে কাজে যাওয়ার সময় সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হন সজীব। পরে তাকে সেখানকার একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

রবিবার (২৭ নভেম্বর) মধ্যরাতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। পরে তার মৃত্যুর বিষয়টি দেশের বাড়িতে জানানো হয়। সজীব মিয়ার মৃত্যুতে পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তার মরদেহ দ্রত দেশে আনার ব্যবস্থা করতে সরকারের কাছে দাবি জানিয়েছে পরিবার।ছয় বছর আগে সৌদি আরবে পাড়ি জমান কিশোরগঞ্জের সজীব মিয়া। কিছু দিনের মধ্যে বাড়িতে ফিরে আসার কথা ছিল তার। এর আগেই সড়ক দুর্ঘটানার প্রাণ হারিয়েছেন তিনি। 

সোমবার (২৮ নভেম্বর) বিকালে নিহতের বড় বোন মরিয়ম বেগম এ প্রতিনিধিকে তথ্য নিশ্চিত করেছেন। রবিবার (২৭ নভেম্বর) মধ্যরাতে সৌদি আরবের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত সজীব মিয়া কিশোরগঞ্জের নিকলী উপজেলার শাহাপুর-মাইজহাটি এলাকার বাবুল মিয়ার ছেলে। 

পরিবারিক সূত্রে জানা যায়, ছয় বছর আগে সৌদি আরবে পাড়ি জমান সজীব মিয়া। সেখানে একটি কোম্পানিতে চাকরি করতেন। কিছু দিনের মধ্যে বাড়িতে আসবেন বলে পরিবারের সদস্যদের জানিয়েছিলেন তিনি। তার আগেই পাড়ি জমালেন না ফেরার দেশে। সজীবের বড় বোন মরিয়ম বেগম জানান, কয়েকদিন আগে কাজে যাওয়ার সময় সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হন সজীব। পরে তাকে সেখানকার একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রবিবার (২৭ নভেম্বর) মধ্যরাতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। পরে তার মৃত্যুর বিষয়টি দেশের বাড়িতে জানানো হয়। সজীব মিয়ার মৃত্যুতে পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তার মরদেহ দ্রুত দেশে আনার ব্যবস্থা করতে সরকারের কাছে দাবি জানিয়েছে পরিবার।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image