• ঢাকা
  • বুধবার, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ২৪ জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

তুকতাক করার অভিযোগে গ্রেফতার মালদ্বীপের নারী মন্ত্রী


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৯:৩৬ এএম
মালদ্বীপ
মালদ্বীপে নারী মন্ত্রী শামনাজ আলি

নিউজ ডেস্ক: মালদ্বীপের নারী মন্ত্রী ফাতিমা শামনাজ আলী সেলিমকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মুইজ্জুর ঘনিষ্ঠ হওয়ার জন্য জাদুবিদ্যা অনুশীলন করার অভিযোগ রয়েছে। গ্রেপ্তার শামনাজ আলী পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী। স্থানীয় গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময় একজন কর্মকর্তা জানান, শামনাজ আলীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং তাকে ৭ দিনের হেফাজতে পাঠানো হয়েছে। মালদ্বীপের সংবাদপত্র আধাধু জানিয়েছে  হুলহুমালে ম্যাজিস্ট্রেট আদালত মন্ত্রী শামনাজ আলী সেলিমের আটকের মেয়াদ বাড়িয়েছে।

আধাধু এক প্রতিবেদনে বলেছে, ফাতিমা শামনাজ রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের মন্ত্রী আদম রমিজের প্রাক্তন স্ত্রী। সূত্রের বরাত দিয়ে ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গ্রেপ্তারের আগে ফাতেমা শামনাজের বাড়িতে পুলিশ অভিযান চালিয়েছিল। শামনাজের বাড়ি থেকে কিছু জিনিসপত্র জব্দ করেছে পুলিশ। শামনাজ আলি আগে রাষ্ট্রপতি ভবন মুলিজে কর্মরত ছিলেন, কিন্তু সম্প্রতি তাকে পরিবেশ প্রতিমন্ত্রী করা হয়েছে। মালদ্বীপের স্থানীয় গণমাধ্যমেও দাবি করা হচ্ছে, শামনাজের সাবেক স্বামীকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে মুইজ্জু সরকার।

মন্ত্রীর সাবেক স্বামী কি জাদুবিদ্যায় জড়িত?

বলা হচ্ছে যে আদম রমিজ, যিনি মালদ্বীপের রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ মুইজ্জুর খুব ঘনিষ্ঠ কাজ করেছিলেন, তাকে গত কয়েক মাস ধরে দেখা যাচ্ছে না। গ্রেফতারকৃত মন্ত্রী শামনাজের তিন সন্তান রয়েছে যার মধ্যে একজনের বয়স এক বছরের কম। ফাতিমা শামনাজ ও আদম রমিজের সম্প্রতি বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে। আদম রমিজ জাদুবিদ্যার সঙ্গে জড়িত কি না তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। মালদ্বীপের প্রেসিডেন্টের কার্যালয় ফাতিমা শামনাজকে গ্রেপ্তারের বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

ঢাকানিউজ২৪.কম / এসডি

আরো পড়ুন

banner image
banner image