• ঢাকা
  • সোমবার, ৩ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ; ১৭ জানুয়ারী, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

অবৈধ দখলদারদের বৈধ নোটিশ সিটি কর্পোরেশন দেবে না: মেয়র আতিক


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শনিবার, ২৭ নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৫৪ পিএম
বুড়িগঙ্গা নদী উৎসব ২০২১ অনুষ্ঠিত হয়
বুড়িগঙ্গা নদী মোর্চা আয়োজিত বুড়িগঙ্গা নদী উৎসবে ঢাকা

নিউজ ডেস্ক:  ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ কনসোর্টিয়াম এবং বুড়িগঙ্গা নদী মোর্চা আয়োজিত বুড়িগঙ্গা নদী উৎসবে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেছেন অবৈধ দখলদারদের কোন বৈধ নোটিশ সিটি কর্পোরেশন প্রদান করবে না।

ঢাকার প্রাণ বুড়িগঙ্গা নদীকে দূষণের হাত থেকে রক্ষা করতে ২৭ নভেম্বর ২০২১, শনিবার ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ কনসোর্টিয়াম এবং নদীপাড়ের সংগঠনসমূহকে নিয়ে গঠিত বুড়িগঙ্গা নদী মোর্চার উদ্যোগে বুড়িগঙ্গা নদী উৎসব ২০২১ অনুষ্ঠিত হয়।

বুড়িগঙ্গা নদী তীরে অবস্থিত বছিলা পুরাতন সরকারি প্রাথমিক বিদালয় সংলগ্ন মাঠে দিনব্যাপী এই “বুড়িগঙ্গা নদী উৎসব ২০২১ অনুষ্ঠিত হয় জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে উৎসবের সূচনা করা হয়। জাতীয় সংগীত শেষে পায়রা উড়িয়ে উৎসবের শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম।

বিশিষ্ট মানবাধিকার কর্মী অ্যাডভোকেট সুলতানা কামাল এর সভাপতিত্বে এবং ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ এর সমন্বয়ক জনাব শরীফ জামিল এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এই বুড়িগঙ্গা নদী উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)’র সহ-সভাপতি এবং ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার তাকসিম এ খান।

বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি জনাব শেখ বজলুর রহমান, ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জনাব হুমায়ুন কবির। উদ্বোধনী অধিবেশনে অতিথি হিসাবে আরো উপস্থিত ছিলেন ইউএসএআইডি বাংলাদেশ এর প্রজেক্ট ম্যানেজমেন্ট স্পেশালিস্ট-সিভিল সোসাইটি অ্যাডভাইজার সুমনা বিনতে মাসুদ, কাউন্টারপার্ট ইন্টারন্যাশনাল এর প্রোমোটিং অ্যাডভোকেসি অ্যান্ড রাইটস (পার) প্রকল্পের ডেপুটি চিফ অব পার্টি শাহিদ হোসেন, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের ৩৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিল আসিফ আহমেদ প্রমূখ।

উদ্বোধনী অধিবেশনে প্রধান অতিথির আলোচনায় ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম বলেন, ডেভেলপার কোম্পানিগুলো ডিজাইনের সময় খেলার মাঠ, শশ্মান, বাজারসহ অনেক সুবিধা দেয়ার কথা বললেও প্রকৃতপক্ষে তারা সবকিছুই পরে ভুলে যান। পরিবেশ আন্দোলনের কাছে, নাগরিক সমাজকে বলবো এবিষয়ে আইনগত পদক্ষেপের কথা ভাবতে যাতে করে

যে ডিজাইন দেখিয়ে তারা এগুলো বিক্রি করেছেন তা দেন। তাদেরকে বলতে হবে যে খালগুলো দখল করেছেন সেগুলো মুক্ত করে দিন।

তিনি বলেন, যারা অবৈধ নদী-খাল দখল করছে তাদের উচ্ছেদে কোন বৈধ নোটিশ দেওয়া হবে না। ঢাকার পরিবেশ রক্ষায় প্রতিটি শিশুর জন্মনিবন্ধনের সাথে একটি করে গাছ প্রদান করা হবে।

সভাপতির বক্তব্যে সুলতানা কামাল বলেন, নদী বাঁচানো মানে নিজেকেই বাঁচানো। আমরা সরকারের উপর চাপ প্রয়োগ করতে চাই না। অংশগ্রহণ করতে চাই, অংশীদারিত্ব চাই। সংবিধান মেনে আমরা যে কাজ করি সেগুলোতে আমরা যেন বাধার শিকার না হই।

নদী উৎসবের সম্মানিত অতিথি তাকসিম এ খান বলেন, নদী বিষয়ক মাস্টারপ্ল্যান যাতে প্রকল্পভিত্তিক না হয়। এটি সমাধানভিত্তিক পন্থায় পরিচালিত হতে হবে। লন্ডন এর টেমস নদীকে বাঁচাতে ৫৫ বছর লেগেছে। আমরা চেষ্টা করলে আমাদের বুড়িগঙ্গাকেও বাঁচাতে পারবো।

ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ এর সমন্বয়ক শরীফ জামিল বলেন, বুড়িগঙ্গাকে বাঁচাতে পদক্ষেপ গ্রহণে বিজ্ঞানভিত্তিক তথ্য দিয়ে আমরা সরকারকে সহযোগিতা করতে চাই। সরকারের নদী বিষয়ক পরিকল্পনার সাথে নদী পাড়ের মানুষদেরকে অনুর্ভূক্ত করতে হবে।

ঢাকানিউজ২৪.কম /

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image