• ঢাকা
  • রবিবার, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২২ মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

কক্সবাজারের মোরশেদ হত্যা মামলার চার আসামি গ্রেপ্তার


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: রবিবার, ০৮ মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ০৩:০২ পিএম
হত্যা মামলার চার আসামি গ্রেপ্তার
মোরশেদ আলী

ডেস্ক রিপোর্টার: কক্সবাজারের পিএমখালীর আলোচিত মোরশেদ আলী ওরফে মোরশেদ বলী হত্যা মামলার এজাহারভূক্ত চার আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। রবিবার দুপুরে র‌্যাব-১৫ কক্সবাজার ব্যাটালিয়ন দপ্তরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান উপ-অধিনায়ক মেজর মঞ্জুর মেহেদী ইসলাম।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের কাঠালমুরা এলাকার মৃত শফিউল আলমের ছেলে মতিউল ইসলাম (৩৪), তার ভাই সাইফুল ইসলাম (৪৫) ও আজহারুল ইসলাম (৩২) এবং একই ইউনিয়নের বাংলাবাজার এলাকার মৃত সৈয়দ আহমেদের ছেলে জয়নাল আবেদীন (৪৮)।

শনিবার রাতে কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নসহ বিভিন্ন এলাকায় এ অভিযান চালিয়ে এজাহারভূক্ত এ চার আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানান র‌্যাবের এ কর্মকর্তা।

বিভিন্ন সময় অভিযান চালিয়ে ওই মামলার ৯ জন আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। তাদের মধ্যে ৬ জনকে র‌্যাব এবং ৩ জনকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে।

গত ৭ এপ্রিল ইফতারের আগ মুহুর্তে কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের চেরাংঘাটা বাজারে বাঁকখালী নদীতে স্থাপিত সরকারি পানি সেচ প্রকল্পের ব্যবস্থাপনাকে কেন্দ্র করে মোরশেদ আলী ওরফে মোরশেদ বলীকে প্রতিপক্ষের লোকজন প্রকাশ্যে রড, ছোরা ও লাঠি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করে।

নিহত মোরশেদ আলী ওরফে মোরশেদ বলী (৩৮) কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের মাইজপাড়ার মৃত ওমর ফারুকের ছেলে।

এ ঘটনায় গত ৯ এপ্রিল নিহতের ভাই জাহেদ আলী বাদী হয়ে কক্সবাজার সদর থানায় স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল মালেককে প্রধান অভিযুক্ত করে ২৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

মেজর মঞ্জুর মেহেদী বলেন, পানির সেচ প্রকল্পের বিবাদকে কেন্দ্র করে কক্সবাজার সদরের পিএমখালী ইউনিয়নের চেরাংঘাটা বাজারে প্রতিপক্ষের লোকজন প্রকাশ্যে পিটিয়ে হত্যা করে মোরশেদ আলী ওরফে মোরশেদ বলী নামের এক ব্যক্তিকে। এ ঘটনাটি নানা মহলে বেশ চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করে। ঘটনায় মামলা দায়ের হওয়ার পর র‌্যাব এজাহারভূক্ত আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান শুরু করে।

শনিবার রাতে কক্সবাজার সদরের পিএমখালী ইউনিয়নসহ বিভিন্ন এলাকায় মামলার এজাহারভূক্ত কয়েকজন আসামি অবস্থান করছে বলে খবর আসলে র‌্যাবের একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। এতে পিএমখালী ইউনিয়নের মাইজপাড়া থেকে দুইজন এবং ঘোনারপাড়া ও বাংলাবাজার এলাকা থেকে অপর দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আইন ও আদালত বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image