• ঢাকা
  • বুধবার, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ২৪ জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

লুব্রিকেন্টের ট্যারিফ বাড়িয়ে ডলার পাচারের সুযোগ দিল সরকার


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শুক্রবার, ২৮ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৯:০২ এএম
লুব্রিকেন্ট
বক্তব্য রাখছেন সংগঠনের সভাপতি জমশের আলী

সুমন দত্ত: চলতি বছরে প্রস্তাবিত বাজেটে ফিনিশড লুব্রিকেন্ট ও সিনথেটিক লুব্রিকেন্টস এর ট্যারিফ (শুল্কায়ন) বাড়ানো হয়েছে। যা অস্বাভাবিক। আন্তর্জাতিক বাজারের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এর ট্যারিফ মূল্য নির্ধারণের দাবি জানিয়েছে লুব্রিকেন্ট ইমপোর্টারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ। ট্যারিফ না কমালে ডলার পাচার হবে নিশ্চিত। দেশের বাজারে দেখা দেবে ডলার সংকট।

বৃহস্পতিবার (২৭-৬-২০২৪ইং) ঢাকা রিপোর্টস ইউনিটির নসরুল হামিদ মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে দেশের অর্থমন্ত্রীর কাছে এই প্রস্তাব করেন তারা। 

সংবাদ সম্মেলনে প্রেস রিলিজ পাঠ করেন সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ জমসের আলী। এসময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। 

জমসের আলী বলেন, মাননীয় অর্থমন্ত্রী এ বছর ২০২৪-২৫ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেটে আমদানিকৃত ফিনিশড লুব্রিকেন্ট এইচএস কোড ২৭১০.১৯.৩১ এর শুল্কায়ন মূল্য প্রতি মেট্রিক টন তিন হাজার ডলার ধরেছেন। অন্যদিকে সিনথেটিক লুব্রিকেন্ট অয়েল এইচএস কোড ১৭১০.১৯.৩৩ এর শুল্কায়ন মূল্য প্রতি মেট্রিকটন পাঁচ হাজার ডলার প্রস্তাব করেছে। আমরা চাই এই শুল্কায়ন মূল্য পরিবর্তন করে দুই হাজার ডলার করা হউক। 

তিনি আরো বলেন, দেশে প্রতি বছর দুই লক্ষ সত্তর হাজার মেট্রিক টন লুব্রিকেন্টের চাহিদা রয়েছে। তার মধ্যে ৬৫ পারসেন্ট যোগান দেয় আমদানিকারকরা। সরকার প্রতি বছর এই সেক্টর থেকে ১৫ হাজার কোটি টাকা রাজস্ব পায়।  যা দেশের উন্নয়নে ব্যয় হচ্ছে। ফিনিশড ও সিনথেটিক লুব্রিকেন্টের আন্তর্জাতিক বাজার মূল্য  যথাক্রমে প্রতি মেট্রিক টন ১৭০০ ও ২০০০ ডলার। সে হিসেবে ফিনিশড লুব্রিকেন্টের শুল্ক বাড়ল ৭০ পারসেন্ট অর সিনথেটিক লুব্রিকেন্টের বাড়ল ১৫০ পারসেন্ট। বাজার মূল্য থেকে শুল্কায়ন মূল্য অতিরিক্ত ধায্য করায় প্রতি মেট্রিক টন ফিনিশড লুব্রিকেন্ট ১৩০০ ডলার, আর সিনথেটিক লুব্রিকেন্ট প্রতি মেট্রিকটন ৩০০০ ডলার পাচার করার সুযোগ সৃষ্টি করা হয়েছে। এতে করে সরকারি সুবিধায় নিশ্চিতভাবে অর্থ পাচার বৃদ্ধি পাবে।

শুল্ক এভাবে বাড়লে ডলার পাচার বেড়ে যাবে। দেশে ডলার সংকট দেখা দেবে। ওভার ইনভয়েসের সুযোগ থাকায় ডলার পাচার নিশ্চিতভাবে বাড়বে। 

সরকারকে এ বিষয়টা ভেবে দেখতে বলেছেন সংগঠনের নেতারা।      

ঢাকানিউজ২৪.কম / এসডি

আরো পড়ুন

banner image
banner image