• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০৬ ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

পুনরায় দিওড় ইউপি ওয়ার্ড সদস্য গণ জনসাধারণের সেবায় নিয়োজিত


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: সোমবার, ০৭ নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ০৪:৫৩ পিএম
দিওড় ইউপি ওয়ার্ড সদস্য গণ
জনসাধারণের সেবায় নিয়োজিত

রেজওয়ান আলী, বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধ: দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার চার নাম্বার দিওড় ইউনিয়ন পরিষদ ওয়ার্ড সদস্যগণ পুনরায় জনসাধারণের সেবার কাজে নিয়োজিত হয়েছেন বলে জানা যায়। ৭ ই নভেম্বর ২০২২ সারাদেশের ন্যায় দিনাজপুর বিরামপুর উপজেলার ৪নং দিওড় ইউনিয়ন পরিষদে নিম্ন ও মধ্য আয়ের মানুষের মাঝে টিসিবির পণ্য বিতরণ অব্যাহত রয়েছে । 

জানা যায় উক্ত ইউনিয়ন পরিষদ নিয়ে বেশ কিছুদিন যাবত চেয়ারম্যান এবং কতিপয় মেম্বারদের মাঝে দন্দের সৃষ্টি হয়েছিল। কিছুদিন পূর্বে মেম্বারগণদের অভিযোগের প্রেক্ষিতে স্থানীয় মন্ত্রণালয় কর্তৃক উক্ত চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক মন্ডল কে বহিষ্কার তথা পথ শুন্য ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানা যায়। সে মর্মে স্থানীয় বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পরিমল কুমার সরকার ইউনিয়ন পরিষদের সকল মেম্বারদের সমন্বয়ে একটি প্যানেল দল গঠন করে দেন। সেই মোতাবেক ইউনিয়ন পরিষদের যাবতীয় কার্যক্রম সদস্যগণের দায়িত্বে আসে । 

এরই ধারাবাহিকতায় ইউপি পরিষদের সকল মেম্বারগণের সমন্বয়ে আজ ৭ই নভেম্বর ২০২২ টিসিবির পণ্য ইউনিয়ন পরিষদ প্রাঙ্গণ থেকেই বিতরণ অব্যাহত রয়েছে। উল্লেখ্য উক্ত টিসিবির পণ্য বিতরণ হয়েছিল ইউনিয়ন পরিষদের ঝানজার ও কানিকাটাল মৌজায় টিসিবির পণ্য গুলি বিতরণ করেছিলে চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক মন্ডল। কিন্তু মেম্বারগণ দায়িত্ব টিসিবির পণ্য একমাত্র স্থল ইউনিয়ন পরিষদ প্রাঙ্গণ বিতরণ অব্যাহত রয়েছে বলে জানা যায়। এ বিষয়ে স্থানীয় জনসাধারণের নিকট জানতে চাইলে তারা বলেন দীর্ঘ কয়েক মাস যাবত সকল দায় দায়িত্ব পালন করেছিলেন নির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক মন্ডল। 

তারই কিছু কার্যক্রমের সমস্যা হওয়ার কারণে সকল ওয়ার্ড মেম্বারগণ তার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন । সেই প্রেক্ষিতে উক্ত অভিযোগটি উপজেলা জেলা বিভাগ এবং কেন্দ্রীয় পর্যায়ে তদন্ত সম্পন্ন হয়। সরকার বাহাদুরের মাননীয় মন্ত্রণালয়ের সচিব উক্ত ঘটনার সরেজমিনের সঠিক তদন্ত সাপেক্ষে যে আদেশ দিয়েছেন তাতে করে উক্ত চেয়ারম্যান কে বহিষ্কার করা হয় এতে আমরা খুব খুশি এবং আনন্দিত। উক্ত চেয়ারম্যানের অনিয়মের কার্যক্রমের ফাঁদ থেকে জনসাধারণ নিষ্কৃতি পেয়েছে । ভবিষ্যতে জনসাধারণ এমন কোন নেতাকে নির্বাচিত করবে না বলে আশা করি । 

এ বিষয়ে স্থানীয় ওয়ার্ড সদস্য গনের নিকট হইতে জানতে চাইলে তারা জানান ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক মন্ডল নির্বাচিত হওয়ার পর হতে কার্যভার গ্রহণ করেছিলেন, কিন্তু তার কার্যক্রম গুলো ছিল সম্পূর্ণ ভিন্ন আঙ্গিকের । অত্র ইউনিয়নের সকল কার্যক্রম তিনি একাই পরিচালনা করেছিলেন যাহা কখনোই ওয়ার্ড মেম্বারদের সাথে সমন্বয় করেন নাই। ফলে আমরা কর্তৃপক্ষ বরাবর অভিযোগ করেছিলাম । অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত সাপেক্ষে স্থানীয় মন্ত্রণালয় আব্দুল মালেক মন্ডল চেয়ারম্যান কে তার পথ থেকে বহিষ্কার করেন এতে আমরা খুবই খুশি। আমরা সব সময় কামনা করি স্থানীয় জনসাধারণ সরকারের প্রধানকৃত সকল সুবিধা ভাতা যাবতীয় সুবিধাভোগীর কাজ সঠিক ভাবে করতে পারে এই আমাদের কামনা। 

উক্ত টিসিবির পণ্য বিতরণ কালে ইউএনও বিরামপুর প্রতিনিধি দল পর্যবেক্ষণ করেন এবং সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। 

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image