• ঢাকা
  • শনিবার, ৮ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ; ২২ জানুয়ারী, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

সাবিনার চোখে কেমন বিজয়


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শনিবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ০২:১৩ পিএম
সাবিনার বিজয়
বৃদ্ধা সাবিনা ইয়াসমিন

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি: প্লাস্টিকের উপর কয়েক টুকরো ছেড়া কাপড় বিছিয়ে, শীত নিবারণের জন্য  গায়ে একটি জীর্ন গামছা জড়িয়ে- শ্বাসকষ্ট জনিত রোগ নিয়ে স্টেশনের শীতল মেঝেতে শুয়ে ঘুমের জন্য অপেক্ষা করছেন ছিন্নমূল বৃদ্ধা সাবিনা ইয়াসমিন (৬৪)।

অনেক রেল স্টেশনের প্লাটফর্মে এভাবেই কাটিয়েছেন তিনি  জীবনের সিংহভাগ শীতকাল। দু’বার দুটো কম্বল কেউ দিলেও কোনটাই নেই এখন তার কাছে। একটি চুরি হয়েগেছে অন্যটি ছিড়েগেছে। তাই রাতে শীতের প্রকোপ থেকে বাঁচতে গায়ের এ পাতলা জীর্ন গামছাটিই এখন তার রক্ষাকবচ।

বৃহস্পতিবার (১৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় ঠাকুরগাঁও রোড রেল স্টেশনের প্লাটফর্মে এই প্রতিবেদকের সাথে কথা হয় এসব ছিন্নমূল মানুষদের।

আক্ষেপ আর চোখের জলে বুক ভাসিয়ে বৃদ্ধা সাবিনা ইয়াসমিন বলেন, স্বামী মারা গেছে, এক ছেলে, তিন মেয়ে মারাগেছে, ঘর নাই বহুকাল ধরে! শ্বাসকষ্ট রোগ নিয়ে মাটিতে পরে থাকি, যখন শরীরে দম ছিলো তখন বাসা বাড়িতে কাজ করে পেট চলছিলো। এখন হাত পাতে যা পাই, তা দিয়ে দিন যায় একবেলা খেয়ে! চিকিৎসা করাতে পারিনা!  এমনিই একদিন আমিও মরে যাবো!  

কবরে মাটি হবে না নাই তাও বলতে পারছিনা! সরকারের এ একখান কম্বল নিয়ে কি হবে বাপু? থাকার ঘর যদি একখান থাকতো, আমাদের শেখ হাসিনা যদি একখান ঘর দিতো তাহলে মাথা ঢুকিয়ে থাকা যেত। শুনেছি অনেকে নাকি ঘর পাচ্ছে? আমার তো কেউ নাই! আমি যখন মরে যাবো তখন না হয় আবার ঘরখান সরকার নিয়ে নিতো। এভাবে চোখের জল ছেড়ে দিয়ে এই জাগো নিউজের প্রতিবেদকের সাথে কথা বলছিলেন বৃদ্ধা সাবিনা ইয়াসমিন।

ছিন্নমূল আব্দুল গনিমিয়া(৭০) হতাশার হাসি দিয়ে  বললেন,  আজকের দিনে বাংলাদেশ যুদ্ধে বিজয় হয়াছিলো। আজ খুব আনন্দ লাগছে। চারদিকে উৎসব চলছে। উঁচু দালান সাজিছে লাল, নীল বাতিও জ¦লেছে। হামরা ভালো আছি বাবা। সে সময় তো পাক বাহিনীর অত্যাচারের ভয়ে এমনি করে খোলা আকাশতও থাকা যাছিলোনা। এলা তো তাও অভয়ে ঘুমাবা পারিছি। নাহয় লাগিল কনেক ঠান্ডা। দুইটা তো মাসেই- তারপর গরম চলে আসিলে মেঝেখান ওতো  ঠান্ডা লাগিবেনা।

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবু তাহের মোহাম্মদ সামসুজ্জামান বলেন, সরকার গৃহহীন দেন ঘরের ব্যবস্থা করেছে। দেশে কোন মানুষ গৃহহীন থাকবে না। বৃদ্ধ সাবিনা যদি উপজেলায় আবেদন করেন তাহলে তার ঘরের ব্যবস্থা করা যাবে বলে তিনি জানান।

ঢাকানিউজ২৪.কম / গৌতম চন্দ্র বর্মন/কেএন

সারাদেশ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image