• ঢাকা
  • বুধবার, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৯ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

রপ্তানি আয়ের লক্ষমাত্রা ৮১ বিলিয়ন ডলার: বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ০৫ জানুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ০৫:৩১ পিএম
বাণিজ্যমন্ত্রী,টিপু মুনশি
বৃহস্পতিবার ‘অর্থসূচক ক্যাপিটাল মার্কেট এক্সপো এর অনুষ্ঠানে বক্তব্যে রাখেন বাণিজ্যমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন,২০২২ সালের  ডিসেম্বরে দেশের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি রপ্তানি আয় এসেছে। সেই ধারাবাহিকতায় ২০২৪ সালে ৮১ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের রপ্তানি আয়ের প্রত্যাশা করছি আমরা।

বৃহস্পতিবার ‘অর্থসূচক ক্যাপিটাল মার্কেট এক্সপো ২০২৩’-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের আশা প্রকেশ করেন। 

তিনি বলেন, গত বছর ৫১ বিলিয়ন ডলার রপ্তানি আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছিলাম, বছর শেষে সেটা ৬১ বিলিয়ন ডলার হয়েছে, যা লক্ষ্যমাত্রার চেয়েও প্রায় ২০ শতাংশ বেশি। সেই সাহস নিয়ে এবার ৬৭ বিলিয়ন ডলারের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছি। ২০২৪ সালে আমরা ৮১ বিলিয়ন ডলার চাই।

মন্ত্রী বলেন, উন্নত অর্থনীতির দেশে ৫০ শতাংশের বেশি টাকা পুঁজিবাজার থেকে নেওয়া হয়। আমাদের দেশে সেই অবস্থা নেই। দেশে ব্যাংক থেকে লোন নেওয়া হচ্ছে। যার জন্য বেশকিছু সমস্যাও হচ্ছে। যদি ৫০ শতাংশ অর্থও পুঁজিবাজার থেকে আসতো, তবে আমাদের দেশে ব্যবসা-বাণিজ্যের উন্নতি হতে বাধ্য।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমরা এখন একটা বৈশ্বিক সংকটের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। তারপরও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার পরিস্থিতি সামলে নিয়েছে। আমরা মোটামুটি ভালো অবস্থানে রয়েছি। দেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, তখন একটা গোষ্ঠী খুব চালাকির সঙ্গে গুজব ছড়াচ্ছে। তারা মিথ্যা বলছে, মানুষকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছে। এ গোষ্ঠী দেশের উন্নয়ন চায় না।

তিনি আরও বলেন, শুধু পুঁজিবাজার না, রাজনৈতিক ব্যক্তিরাও উন্নয়নের বিরুদ্ধে কথা বলতে চান। তারা কিন্তু এ দেশটার উন্নতি চান না। এ লোকগুলা পঁচাত্তরে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছে। এরপর ‘জয় বাংলা’কে তারা ‘বাংলাদেশ জিন্দাবাদ’ করার অপচেষ্টা করেছে। মূল রাজনীতির দৃষ্টিভঙ্গিটা পাল্টে দেওয়ার চেষ্টা করেছেন তারা।

টিপু মুনশি আরও বলেন, আমাদের গার্মেন্টস শিল্পে মহাক্রান্তিকাল এসেছিল, যখন রানা প্লাজা ধসে যায়। বহু শ্রমিক নিহত হলেন। পৃথিবীর ক্রেতারা অস্থির হয়ে পড়েন। গার্মেন্টস শিল্পের মালিকরাও অস্থির হয়ে পড়েন, আমাদের কী জানি হয়! ক্রেতার যদি মুখ ফিরিয়ে নেন! কিন্তু একটা জিনিস লক্ষণীয়, আমরা সেই বিপদের পরেই ঘুরে দাঁড়িয়েছি। আমরা কম্পলাইনস করেছি। আজ পৃথিবীর সব থেকে বেশি গ্রিন ফ্যাক্টরি আমাদের।

অনলাইন নিউজ পোর্টাল অর্থসূচক আয়োজিত এ মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম।
ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) চেয়ারম্যান ইউনুসুর রহমান প্রমুখ। 
 

ঢাকানিউজ২৪.কম / এমআর

আরো পড়ুন

banner image
banner image