• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৮ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

ইসরায়েলের সঙ্গে দীর্ঘমেয়াদি যুদ্ধের জন্য আমরা প্রস্তুত: হামাস


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শনিবার, ১৮ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৩:৩৪ পিএম
ইসরায়েলের সঙ্গে
দীর্ঘমেয়াদি যুদ্ধের জন্য আমরা প্রস্তুত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ইসরায়েলি আগ্রাসনের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় দীর্ঘমেয়াদে লড়াইয়ের জন্য প্রস্তুত থাকার কথা জানিয়েছে দেশটির সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস।

শুক্রবার এ কথা জানিয়েছে, হামাসের সামরিক শাখা। তুরস্কের বার্তা সংস্থা আনাদোলুর খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এক ভিডিও বার্তায় হামাসের সশস্ত্র শাখা ইজ্জ এল-দিন আল-কাসাম ব্রিগেডের মুখপাত্র আবু উবায়দা বলেন, ‘আমরা আমাদের জনগণের ওপর আগ্রাসন বন্ধ করার বিষয়ে পূর্ণ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। তবে শত্রুকে নিঃশেষ করতে আমরা তাদের সঙ্গে দীর্ঘমেয়াদি যুদ্ধ করতে প্রস্তুত।’

আবু উবায়দা জানান, আল-কাসাম ব্রিগেডের যোদ্ধারা গত ১০ দিনে গাজাজুড়ে ইসরায়েলের একশ সামরিক যান লক্ষ্য করে হামলা চালিয়েছেন।

হামাসের সশস্ত্র শাখার এই মুখপাত্র জানান, হামাসের যোদ্ধারা ট্যাঙ্ক, সৈন্যদের বহনকারী গাড়ি ও বুলডোজারসহ শতাধিক ইসরায়েলি সামরিক যান ধ্বংস করেছে। পাশাপাশি সুরঙ্গ উড়িয়ে দিয়ে, রকেট ও মর্টার সেল ছুড়ে এবং স্নাইপার ও মুখোমুখি লড়াইয়ের মাধ্যমে ইসরায়েলি সেনাদের হতাহত করেছে বলেও দাবি করেন তিনি।

কাসাম ব্রিগেডের মুখপাত্র দাবি করেন, রাফা শহরের পূর্বাঞ্চলে এই ব্রিগেডের যোদ্ধারা শত্রুপক্ষের (ইসরায়েলি সেনাবাহিনী) ওপর কঠিন আঘাত হেনেছেন।

গাজায় ইসরায়েলি বাহিনী যে ক্ষয়ক্ষতির শিকার হচ্ছে, সে বিষয়ে তারা সব প্রকাশ করছে না বলে জানান আবু উবায়দা।

গত বছরের ৭ অক্টোবর গাজার দক্ষিণাঞ্চল থেকে ইসরায়েলে নজিরবিহীন হামলা চালায় হামাস। ইসরায়েলের দাবি, এ হামলায় ১ হাজার ২০০ জন নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া হামাসের যোদ্ধারা ২৫৩ জন ইসরায়েলিকে জিম্মি করে গাজায় নিয়ে যায়।

এ ঘটনার পর থেকেই গাজায় পাল্টা হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েল। শুরুতে গাজার উত্তরাঞ্চলে হামলা শুরু করে ইসরায়েলি বাহিনী। পরবর্তীতে গাজার দক্ষিণাঞ্চলেও তাদের আগ্রাসন ছড়ায়।

ইসরায়েলি এই আগ্রাসনে এখন পর্যন্ত ৩৫ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, যার বেশিরভাগ নারী ও শিশু। এ ছাড়া হামলায় আহত হয়েছেন ৭৯ হাজার ২০০ জনের বেশি।

গাজায় ৭ মাসের বেশি সময় ধরে চলা ইসরায়েলের যুদ্ধে উপত্যকাটির বড় অংশ বিধ্বস্ত হয়েছে। খাবার, পানি, জ্বালানি ও ওষুধের প্রচণ্ড ঘাটতিতে ভুগছে লাখ লাখ মানুষ।

ইসরায়েলের আগ্রাসনে বাস্তুচ্যুত লাখ লাখ ফিলিস্তিনি গাজার সর্বদক্ষিণের শহর রাফায় আশ্রয় নেয়। সেখানেও অভিযান শুরু করেছে ইসরায়েলি বাহিনী। তাদের আগ্রাসনের মুখে এখন পর্যন্ত ৬ লাখের বেশি ফিলিস্তিনি রাফা ছেড়ে পালিয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে ইসরায়েলের প্রতি হুঁশিয়ারি দিয়ে হামাসের মুখপাত্র আবু উবায়দা বলেন, তাদের (ইসরায়েলি সেনাদের) এমন স্থানে তাড়িয়ে নিয়ে যাব, যেখানে সৈন্যদের মৃত্যু ও কর্মকর্তাদের গ্রেপ্তার হওয়া ব্যাতীত কিছুই তারা অর্জন করতে পারবে না।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আরো পড়ুন

banner image
banner image