• ঢাকা
  • রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৯ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

নির্বাচনে ভারত হস্তক্ষেপ করেনি দাবি কানাডার গোয়েন্দা সংস্থার


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ১১ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৭:০০ এএম
কানাডা
ভারত ও কানাডার প্রধানমন্ত্রীর করমর্দনের ছবি

নিউজ ডেস্ক: কানাডার নির্বাচনে বিদেশি হস্তক্ষেপের অভিযোগের সরকারি তদন্তে জানা গেছে ভারত কানাডার রাজনীতিতে হস্তক্ষেপ করার চেষ্টা করেনি। তদন্তে দেখা গেছে কানাডার ২০২১ সালের নির্বাচন পর্যবেক্ষণকারী ঊর্ধ্বতন কানাডিয়ান কর্মকর্তাদের একটি প্যানেল জাতীয় নির্বাচনকে প্রভাবিত করার জন্য ভারতের কোনো প্রচেষ্টা সম্পর্কে অবহিত করা হয়নি। তবে সরকারি তদন্তে সাক্ষ্য অনুযায়ী কানাডার গোয়েন্দা সংস্থা জানতে পেরেছে  কানাডায় অনুষ্ঠিত গত দুটি নির্বাচনে চীন হস্তক্ষেপ করেছিল।

প্রসঙ্গত, কয়েকদিন আগে, কানাডিয়ান সিকিউরিটি ইন্টেলিজেন্স সার্ভিস (সিএসআইএস) কানাডায় ২০১৯ এবং ২০২১ সালে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে হস্তক্ষেপের জন্য ভারত ও পাকিস্তানকে অভিযুক্ত করেছিল। 

প্রধানমন্ত্রী জাস্টিড ট্রুডোর লিবারেল পার্টি ২০১৯ এবং ২০২১ উভয় নির্বাচনেই জয়লাভ করেছিল। প্রকৃতপক্ষে, চীনের সম্ভাব্য ভূমিকা নিয়ে মিডিয়া রিপোর্টে অসন্তুষ্ট বিরোধী বিধায়কদের চাপের মুখে, ট্রুডো বিদেশী হস্তক্ষেপ তদন্তের জন্য একটি কমিশন গঠন করেছিলেন।

ট্রুডো আজ এই মামলায় প্যানেলের সামনে হাজির হবেন। ভারত এর আগে দাবিগুলি অস্বীকার করেছিল এবং অন্যান্য দেশের গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় হস্তক্ষেপ না করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল।

বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র রণধীর জয়সওয়াল ফেব্রুয়ারিতে বলেছিলেন, আমরা কানাডিয়ান কমিশন অফ ইনকোয়ারি সম্পর্কে মিডিয়া রিপোর্ট দেখেছি। কানাডার নির্বাচনে ভারতীয় হস্তক্ষেপের এই ধরনের ভিত্তিহীন অভিযোগ আমরা দৃঢ়ভাবে প্রত্যাখ্যান করি।

তিনি বলেছিলেন, অন্য দেশের গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় হস্তক্ষেপ করা ভারত সরকারের নীতি নয়। বরং ঘটছে উল্টো। কানাডাই আমাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ করার চেষ্টা করছে।

বিদেশী হস্তক্ষেপের বিষয়ে কানাডার তদন্ত দুই দেশের মধ্যে ইতিমধ্যেই উত্তেজনাপূর্ণ সম্পর্ককে আরও উত্তেজিত করেছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম / এসডি

আরো পড়ুন

banner image
banner image