• ঢাকা
  • রবিবার, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ২৬ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

কুমুদিনীর বিরুদ্ধে বিআইডব্লিউটিসি’র জমি দখলের অভিযোগ


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: রবিবার, ২৮ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৫৪ পিএম
কুমুদিনীর বিরুদ্ধে বিআইডব্লিটিসি’র জমি দখলের অভিযোগ

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে সরকারি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্পোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি)এর জমিতে উন্নয়ন কাজে বাধা প্রদানসহ, সরকারি জমিটি জবর দখলের চেষ্টা প্রহরীদের আটকে রেখে মারধর ও সেখানে থাকা গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে কুমুদিনী ওয়েল ফেয়ার স্ট্রাটের বিরুদ্ধে। 

এ ঘটনায় ট্রাস্টের এস্টেট অফিসার, জিএম (প্রশাসন) ও মালিকপক্ষের একজন সহ মোট ৩ জনের নাম উল্লেখ্য এবং ৭০ থেকে ৮০জনকে অজ্ঞাত আসামী করে গত বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) রাতে বিআইডব্লিটিসি নারায়ণগঞ্জ এর সহ-মহাব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) আব্দুল আলীম বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় অভিযোগটি দায়ের করেন।

তবে বিআইডব্লিটিসি এর চেয়ারম্যান ড. এ কে এম মতিউর রহমান জানান, গত বৃহস্পতিবার আমাদের পক্ষ থেকে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হলেও এখন পর্যন্ত সেটি মামলা আকারে গ্রহণ করা হয়নি বিদায় কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে রোববার (২৮ এপ্রিল) নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক ও জেলা পুলিশ সুপারকে লিখিত আকারে অবহিত এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ জানানো হয়েছে।

অভিযোগের বিষয়টি নিশ্চিত করে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাৎ হোসেন জানান আমরা বিআইডব্লিটিসি এর অভিযোগটি পেয়েছি। ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে। 

অভিযোগপত্র এবং জেলা প্রশাসকের কাছে প্রেরিত অবহিত পত্রে উল্লেখ করা হয়, বিআইডব্লিউটিসি নৌপরিবহন মন্ত্রনালয়ের অধিনস্থ একটি সেবামূলক বানিজ্যিক প্রতিষ্ঠান। বিআইডব্লিউটিসি মহামান্য রাষ্ট্রপতির আদেশ নং ২৮/১৯৭২ বলে প্রতিষ্ঠিত হয়। সেই সময় তৎকালীন পাকিস্তান শিপিং কর্পোরেশন, পাকিস্তান রিভার স্টিমার, পাকবে কোম্পানীসহ সর্বমোট ১০টি প্রতিষ্ঠান ও তাদের সকল সম্পত্তি নিয়ে বিআইডব্লিউটিসি গঠিত হয়। উক্ত ১০টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে একটি প্রতিষ্ঠান ৩০ পাকবে কোম্পানীর সম্পত্তি নারায়ণগঞ্জ ৩ ও ৪ ঈশাখাঁ রোডে অবস্থিত জমি উত্তোরাধিকার সূত্রে মালিক হয়ে নির্বিঘ্নে ও শান্তিপূর্নভাবে ১৯৭২ সাল হতে বিআইডব্লিউটিসি ভোগ দখল করে আসছে। উক্ত জমিতে বিআইডব্লিউটিসি খাজনাদিসহ অন্যান্য সরকারি কর ও ইউটিলিটি বিল যথা নিয়মে বিআইডব্লিউটিসি নিজ নামে পরিশোধ করে আসছে। 

উল্লেখ্য, উক্ত জমিতে বিআইডব্লিউটিসির ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ রুটে কমকর্তা/কর্মচারীদের যাতায়াতে নিয়োজিত একটি ৫৬ সিটের স্টাফ বাস থাকতো এবং সেখানে একটি টং দোকান ও নিরাপত্তা চৌকি ছিল। জমিতে অদ্যাবধি সংস্থার নিরাপত্তা প্রহরীগণ পাহারারত থাকেন।

এত কিছুর পরও কুমুদিনী ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্ট অযৌক্তিকভাবে বিজ্ঞ যুগ্ম জেলা জজ, ১ম আদালত, নারায়ণগঞ্জ এ উক্ত জমির মালিকানা দাবি করে দেওয়ানী মামলা নং ১৫৫/২০২৩ দায়ের করেন। কিন্তু আদালত উক্ত জমিতে বিআইডব্লিউটিসি এর মালিকানা বা কোনো উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের উপর কোনোরূপ নিষেধাজ্ঞা প্রদান করেন নাই। বিআইডব্লিউটিসি তার চলমান উন্নয়ন কর্মকান্ডের অংশ হিসেবে উক্ত জমিতে বাউন্ডারী ওয়াল নির্মাণের জন্য কার্যক্রম গ্রহণ করেন। সেই প্রেক্ষিতে বিআইডব্লিউটিসি'র নিয়োজিত ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান কাজ শুরু করলে গত ২৩ এপ্রিল আকস্মিক ভাবে কুমুদিনী ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্ট হতে তাদের এস্টেট অফিসারসহ আনুমানিক ৭০/৮০ জন শ্রমিক অবৈধভাবে অনুপ্রবেশ করে উক্ত জমিতে অবস্থিত বিভিন্ন গাছপালা কাটতে শুরু করে। বিষয়টি উক্ত জমিতে কর্তব্যরত বিআইডব্লিউটিসির নিরাপত্তা প্রহরী সংস্থার কর্তৃপক্ষকে অবহিত করলে তাৎক্ষণিকভাবে সংস্থার উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে হাজির হয়। সেই প্রেক্ষিতে কুমুদিনী কর্তৃপক্ষকে তলব করা হলে কুমুদিনী ট্রাস্টের জিএম (প্রশাসন), কুমুদিনীর মালিক কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধি মল্লিক বাবু ঘটনাস্থলে আসেন। সেখানে উভয় পক্ষের আলোচনার প্রেক্ষিতে সিদ্ধান্ত হয় যেহেতু জমির মালিকানা রেকর্ডপত্রের উপর নির্ভরশীল এবং কুমুদিনী যেহেতু এই বিষয়ে একটি মামলা আদালতে দায়ের করেছে তাই আদালতের মাধ্যমে বিষয়টি নিষ্পত্তি হওয়ার আগ পর্যন্ত কেউ এই জমিতে কোন রকম কার্যক্রম গ্রহন করা হবেনা। 

কিন্তু সেই সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে কুমুদিনী কর্তৃপক্ষের নির্দেশে গত ২৫ এপ্রিল বিকেলে প্রায় ৭০/৮০ জন ব্যক্তি এসে বিআইডব্লিউটিসি এর নিরাপত্তা প্রহরীদের আটকে রেখে ও মোবাইল ছিনিয়ে নিয়ে অস্থায়ীভাবে ঘর তোলা শুরু করে। 

এ ঘটনায় বিআইডব্লিউটিসি এর পক্ষ থেকে কুমুদিনী ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্টএ কর্মরত মল্লিক, জিএম (প্রশাসন), ও অ্যাস্টেট অফিসার শংকর সাহার নাম উল্লেখ সহ আরো ৭০ থেকে ৮০জনকে অজ্ঞাত করে সদর মডেল থানায় অভিযোগটি দায়ের করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে কুমুদীনি ওয়েল ফেয়ার স্ট্রাস্টের অ্যাস্টেট অফিসার শংকর সাহার সাথে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি বার বার ফোন কেটে দিয়েছেন।

 

 

ঢাকানিউজ২৪.কম / জেডএস/বিশ্বজিৎ দাস

আরো পড়ুন

banner image
banner image