• ঢাকা
  • রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৯ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

মালদ্বীপে অনথিভুক্ত অভিবাসীদের সমস্যা  সমাধান করা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৪৯ এএম
মালদ্বীপে অনথিভুক্ত অভিবাসীদের সমস্যা  সমাধান
মন্ত্রী  ইহুসান

নিউজ ডেস্ক : মন্ত্রীদের পাবলিক ফোরাম 'আহা'-এর তৃতীয় অধিবেশনে, সোমবার রাতে অনুষ্ঠিত, মন্ত্রী  ইহুসানকে অনথিভুক্ত অভিবাসীদের মোকাবেলায় সরকারের প্রচেষ্টা সম্পর্কে  স্থানীয় সাংবাদিক বৃন্দ   প্রশ্ন করেন। 

মন্ত্রী বলেন  মালদ্বীপে প্রচুর পরিমাণে অনথিভুক্ত অভিবাসী রয়েছে, যার সঠিক সংখ্যা অজানা।তিনি আরও বলেন যে সরকার আগামী এক বছরের মধ্যে মালদ্বীপে বসবাসকারী সমস্ত অভিবাসীদের চিহ্নিত করার জন্য কাজ করছে।

বিশেষ করে অভিবাসী শ্রমিকরা যারা অদক্ষ শ্রম বিভাগের আওতায় পড়ে। আমরা তাদের উভয় হাতের আঙুলের ছাপ নেব, তাদের ছবি তুলব এবং আমাদের ওয়ার্ক পারমিটের রেকর্ডের সাথে মিলাব।

 
মন্ত্রী  বলেন যারা সরকারী রেকর্ডে নেই সেই অভিবাসীদের তথ্য রেকর্ড করা হবে । সরকার অনথিভুক্ত অভিবাসীদের চিহ্নিত করবে এবং সমস্ত অভিবাসীদের তথ্য সিস্টেমে প্রবেশ করাবে।  আগামী এক মাসের মধ্যে সব আবাসিক দ্বীপে কাজ শুরু করা হবে।দ্বিতীয় ধাপে অনথিভুক্ত শ্রমিকদের নিয়মিত করা হবে।এবং তৃতীয় ধাপে, আমরা তাদের সুযোগ দেব  যাদের কোনোভাবেই শনাক্ত করা যাচ্ছে না, বা যারা আইনের গুরুতর লঙ্ঘন করছেন মানে যারা পলাতক, যারা কোনো কোম্পানিতে কিনবা মালিকের অধিনে  কাজ করছেন না। কোম্পানির নামে যারা আছে কোম্পানি গুলো  যারা রাষ্ট্রকে কোনো ট্যাক্স বা কিছু দিচ্ছে না। অবৈধভাবে মালদ্বীপে বসবাস করছে এবং দেশে। টাকা পাঠাচ্ছে আমরা এই ধরনের লোকদের নিয়মিত হওয়ার সুযোগ দেব, 

 মন্ত্রী ইহুসান বলেন, যারা সুযোগ কাজে লাগাতে ব্যর্থ হবে তাদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানো হবে।
 তিনি  আরও বলেন সরকার বিদেশী দূতাবাসগুলির সাথে নথি তৈরি করতে এবং কোনও প্রকার শনাক্তকরণ ছাড়াই অভিবাসীদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানোর জন্য  সরকার সহযোগিতা করবে।

 ইহুসান বলেন, সরকার তিন বছরের মধ্যে কাজ শেষ করতে কাজ করবে।  তিনি এক মাসের মধ্যে অভিবাসীদের নিয়োগের জন্য একটি সম্পূর্ণ IT-নির্ভর ব্যবস্থা স্থাপনের জন্য একটি প্রকল্প বাস্তবায়নের পরিকল্পনার কথাও ঘোষণা করে।

এটি অভিবাসীদের ব্যবস্থাপনাকে আরও সহজ করবে।  তিনি আরও বলেন, পুলিশ ও স্থানীয় পরিষদের সহযোগিতায় কাজটি করা হবে।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আরো পড়ুন

banner image
banner image