• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৮ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

সন্দেশখালি নিয়ে তোপ মোদির


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শুক্রবার, ০১ মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৮:৪৩ পিএম
মোদি
নরেন্দ্র মোদি

নিউজ ডেস্ক: আরামবাগের জনসভা (Lok Sabha Election 2024) থেকে মোদির মুখে সন্দেশখালি প্রসঙ্গ। সন্দেশখালির ঘটনায় রাজ্য়ের শাসকদলকে তোপ প্রধানমন্ত্রীর। 

মোদি বললেন, 'পশ্চিমবঙ্গের অবস্থা আজ গোটা দেশ দেখছে। তৃণমূল শুধু মুখেই মা-মাটি মানুষের কথা বলে। সন্দেশখালির (PM Modi on Sandeshkhali)  ঘটনায় গোটা দেশ শিহরিত। সন্দেশখালির মা-বোনেদের অত্যাচার চালিয়েছে তৃণমূল। সন্দেশখালিতে যা হয়েছে, আজ তা দেখে হয়তো রাজা রামমোহন রায়ের আত্মাও কাঁদছে। দুঃসাহসের সমস্ত সীমারেখা অতিক্রম করে গিয়েছে তৃণমূল।' বিজেপির আন্দোলনের চাপ এবং সন্দেশখালির বাসিন্দাদের আন্দোলনের চাপেই তৃণমূল সরকার শেখ শাহজাহানকে গ্রেফতার করতে বাধ্য হয়েছে বলে তোপ মোদির। প্রধানমন্ত্রী ( PM Narendra Modi) বলেন, 'সন্দেশখালির মা-বোনেদের আন্দোলনের কাছে মাথা নত করতে বাধ্য হয়েছে বাংলার পুলিশ।' তার সঙ্গেই মোদির খোঁচা, 'চোটের জবাব ভোটে দেবেন বাংলার মানুষ।'

মমতার কাছে সাহায্য চাইলেও মুখ ফিরিয়ে ছিলেন মমতা, অভিযোগ মোদির (PM Modi West Bengal Visit)। 'সন্দেশখালির মা-বোনেরা মমতা দিদির কাছে সাহায্য চেয়েছিল। কিন্তু কেউ তো অভিযুক্তদের আড়াল করছিল এতদিন। সন্দেশখালির মা-বোনেদের আন্দোলনের কাছে মাথা নত করতে বাধ্য হয়েছে বাংলার পুলিশ। মা-বোনেদের সঙ্গে যা হয়েছে, তার জবাব দিতে হবে', হুঙ্কার মোদির।

সন্দেশখালির ঘটনা নিয়ে বিরোধী জোটকেও একহাত নিয়েছেন মোদি। তাঁর তোপ, 'সব দেখেও না দেখার ভান বিরোধী জোটের সদস্যদের। মুখ্যমন্ত্রীর জবাব চাওয়ার সাহস পর্যন্ত দেখাননি বাম-কংগ্রেস। বিরোধী জোটের সদস্যরা চোখ-কান-মুখ বন্ধ করে বসে আছে। কংগ্রেসের জাতীয় সভাপতি বলছেন, এমন তো হতেই পারে, এটা বাংলার মানুষের অপমান।'

প্রাইমারি শিক্ষক নিয়োগ থেকে গরুপাচার, চিটফান্ড থেকে রেশন- সবকিছুতেই তৃণমূল দুর্নীতি করেছে বলে জনসভা (PM Modi Public Meeting) থেকে তোপ দেগেছেন প্রধানমন্ত্রী। পার্থর বন্ধু অর্পিতার বাড়ি থেকে বিপুল নগদ উদ্ধারের প্রসঙ্গও উঠে আসে মোদির মুখে। মোদির দাবি, 'এখানকার মুখ্যমন্ত্রী ধর্নায় বসে যান। টিএমসি চায় কেন্দ্রের প্রকল্পেও খোলাখুলি লুঠ করতে। মোদি এটা করতে দেবে না।' তৃণমূলের লুঠের জন্য় পশ্চিমবঙ্গের উন্নতি বাধা পাচ্ছে বলে অভিযোগ মোদির। তাঁর তোপ, 'তৃণমূলের লুঠের জন্য পশ্চিমবঙ্গের গরিব ও মধ্যবিক্ত ভুক্তভোগী হচ্ছেন।' 

ঢাকানিউজ২৪.কম / এসডি

আরো পড়ুন

banner image
banner image