• ঢাকা
  • শুক্রবার, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ; ০১ মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

অর্থনৈতিক সম্পর্ক জোরদারে বাংলাদেশ ও মেক্সিকোর অঙ্গীকার


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ০১:৩১ পিএম
টিপু
বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি

নিউজ ডেস্ক: অর্থনীতি, বাণিজ্য ও ব্যবসায়িক সহযোগিতা সম্প্রসারণের বিষয়ে বাংলাদেশের বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি ও মেক্সিকোর সেক্রেটারি অব ইকোনোমি রাকেল বুয়েনরোস্ট্রো (Secretary of the Economy, Raquel Buenrostro) অঙ্গীকার করে দুই দেশের অর্থনৈতিক সম্পর্ককে নতুন উচ্চতায় নেয়ার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছেন।

 মেক্সিকোতে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশের বাণিজ্যমন্ত্রী এবং মেক্সিকোর সেক্রেটারি অব ইকোনোমি রাকেল বুয়েনরোস্ট্রো একটি দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হয়ে উভয় দেশের পক্ষে এই প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন। দুই দেশের দুই দেশের মধ্যে প্রায় পাঁচ দশকের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের মধ্যে এই ধরনের এটিই প্রথম বৈঠক।

২০৪১ সালের মধ্যে সুখী-সমৃদ্ধ ও উন্নত স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে বর্তমান সরকারের প্রতিশ্রুতি এবং এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে একটি দ্রুততম বর্ধনশীল অর্থনীতির দেশ হিসেবে এর অবস্থান তুলে ধরে টিপু মুনশি উভয় দেশের মধ্যকার সহযোগিতা আরও বাড়ানোর জন্য একটি দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য জয়েন্ট গ্রুপ গঠনের প্রস্তাব করেন। 

বাংলাদেশ বিদেশী বিনিয়োগের উত্তম জায়গা উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার একশোটি বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা করেছেন। সেখানে বিশ্বের অনেক দেশ ইতোমধ্যে বিনিয়োগ করেছেন। এসব অর্থনৈতিক অঞ্চলে মেক্সিকান বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ করার আহবান জানিয়ে বাংলাদেশের ১৭ কোটির বেশি মানুষের বাজারে প্রবেশের অনুরোধ জানান।

এছাড়া বাণিজ্যমন্ত্রী মেক্সিকোর উদ্যোক্তা ও ব্যবসায়ী সম্প্রদায়কে বাংলাদেশের উৎপাদন বিশেষ করে টেক্সটাইল, ফার্মাসিউটিক্যালস, কৃষি, জ্বালানি এবং আইটি খাতে মেক্সিকোর চাহিদা মেটাতে বাজার অন্বেষণেরও আহ্বান জানান।

মেক্সিকোর সেক্রেটারি অব ইকোনোমি বুয়েনরোস্ট্রো দ্বৈত ট্যাক্সেশন এবং কাস্টমসের অনিষ্পন্ন চুক্তিগুলির সমাধান করার প্রয়োজনীয়তার উপর গুরুত্বারোপ করেন। তিনি তার দেশের বিভিন্ন রাজ্যের সাথে বাংলাদেশের ব্যবসাীয়দের আনুষ্ঠানিক যোগাযোগ ও ব্যবসায়িক ক্ষেত্র অনুসন্ধানের আহবান জানান এবং বাংলাদেশের ফার্মাসিউটিক্যাল সেক্টরে দেশটির গভীর আগ্রহের কথা প্রকাশ করেন। দুই দেশের শক্তিশালী অর্থনৈতিক সম্পর্কের ভিত্তি রচনার প্রতিশ্রুতিও ব্যক্ত করেন ইকোনোমি সেক্রেটারি। 
এসময় বাণিজ্যমন্ত্রী মেক্সিকোর অর্থনৈতিক সচিবকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানান। 

বৈঠককালে মেক্সিকোতে বাংলাদেশের নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলাম, বাংলাদেশের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব আব্দুর রহিম খান, এফবিসিসিআই-এর সহ-সভাপতি রাশেদুল হোসেন চৌধুরী অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন।

পরে মন্ত্রী মেক্সিকোতে বসবাসরাত বাংলাদেশী সম্প্রদায়ের সাথে চ্যান্সারিতে অনুষ্ঠিত এক মতবিনিময় সভায় যোগ দেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

সভায় দেয়া প্রধান অতিথির বক্তব্যে টিপু মুনশি নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি, বৈধ পথে রেমিটেন্স প্রেরণ এবং মেক্সিকোতে বাংলাদেশী পণ্যের বাজার সম্প্রসারণে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন। মেক্সিকোতে বসবাসরত মানুষের কল্যাণে সরকার সবসময় পাশে আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে বলে প্রতিশ্রুতি দেন। 

এসময় দেশটিতে বসবাসরত বাংলাদেশী নাগরিকরা মন্ত্রী নিকট ভিসা চ্যালেঞ্জসহ কিছু বিষয়ে উদ্বেগ জানালে সেগুলো দ্রুত সমাধানে সরকারের পক্ষ থেকে সবধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেন। 

উল্লেখ্য, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি’র নেতৃত্বে এফবিসিসিআই, বিকেএমইএ, বিটিটিএলএমইএ, বিএপিআই, ইনসেপ্টাসহ একটি ১২ সদস্যের উচ্চ-পর্যায়ের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল মেক্সিকো সফর করছেন।

ঢাকানিউজ২৪.কম / এসডি

আরো পড়ুন

banner image
banner image