• ঢাকা
  • রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৯ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ ৩ রানে জয়ী


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: রবিবার, ৩০ অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ০৪:৫০ পিএম
টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম হাফ-সেঞ্চুরির ইনিংস
বাংলাদেশ ৩ রানে জয়ী

নিউজ ডেস্ক:   টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ সুপার টুয়েলভে শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে ৩ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে এই জয়ে সেমিফাইনালে খেলার আশা টিকিয়ে রাখলো টাইগাররা। ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্তর ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসের সুবাদে প্রথমে ব্যাট করে ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৫০ রান করে বাংলাদেশ। টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম হাফ-সেঞ্চুরির ইনিংসে ৫৫ বলে ৭১ রান করেন শান্ত। 

জবাবে দুই পেসার তাসকিন আহমেদ ও মুস্তাফিজুর রহমানের দুর্দান্ত বোলিংয়ে জিম্বাবুয়েকে ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৪৭ রানে আটকে রাখে বাংলাদেশ। ১৯ রানে ৩ উইকেট নিয়ে ম্যাচ সেরা হন তাসকিন। ১৫ রানে ২ উইকেট নেন ফিজ।

ব্রিজবেন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে মেহেদি হাসান মিরাজের পরিবর্তে ইয়াসির আলিকে অন্তর্ভুক্ত করে একাদশ সাজায় বাংলাদেশ। টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্বান্ত নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। দ্বিতীয় ওভারেই উইকেট হারায় ।

জিম্বাবুয়ের পেসার ব্লেসিং মুজারাবানির অফ স্টাম্পের বাইরে বলে পুশ করতে গিয়ে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দেন ২ বলে কোন  রান করতে না পারা ওপেনার সৌম্য সরকার। ৭১ ম্যাচের টি-টোয়েন্টিতে এ নিয়ে ১১ বার শূন্যতে থামলেন তিনি। চার নম্বরে শান্তর সাথে বড় জুটির চেষ্টা করেন সাকিব। রান তোলার গতি টি-টোয়েন্টি মেজাজেনা থাকলে  ১০ ওভার শেষে ৬৩ রান পায় টাইগাররা। ১২তম ওভারে শান্ত-সাকিবের জুটিতে ৫০ পূর্ণ হয়।

হাফ-সেঞ্চুরি তুলে  জমে যাওয়া শান্ত-সাকিব জুটি ভাঙ্গতে মরিয়া হয়ে ওঠেন জিম্বাবুয়ে অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিন। ছয় বোলার ব্যবহার করেও এ জুটি  বিচ্ছিন্ন করতে পারছিলেন না ।

নিজের প্রথম ওভারেই বাজিমাত করেন উইলিয়ামস। ওভারের পঞ্চম বলে স্লগ করে ডিপ মিড উইকেট দিয়ে ছক্কা মারার চেষ্টা  করেন  সাকিব। কিন্তু মিস টাইমিংয়ে বল আকাশে উঠে গেলে স্কয়ার লেগে মুজারাবানির দারুন ক্যাচে গুরুত্বপূর্ন ব্রেক-থ্রু পেয়ে যায় জিম্বাবুয়ে। দ্বিতীয় উইকেটে ৪৪ বলে ৫৪ রান করেন শান্ত-সাকিব। ১টি চারে ২০ বলে ২৩ রান করেন টাইগার দলপতি। সাকিব ফেরার পরের ওভারে ১৪ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে  ৪৫ বলে প্রথম হাফ-সেঞ্চুরি পুর্ন করেন শান্ত। 

ইভান্সের করা ১৬তম ওভার থেকে ১৭ রান পায় বাংলাদেশ। ঐওভারে শান্ত ১টি ছয় ও ২টি চার মারেন। পরের ওভারের দ্বিতীয় বলে স্পিনার সিকান্দার রাজার শিকার হয়ে সাজঘরে ফিরেন শান্ত। মিড-অফ দিয়ে ছক্কা মারতে গিয়ে আরভিনকে ক্যাচ দিয়ে আউট হওয়ার আগে ৭টি চার ও ১টি ছক্কায় ৫৫ বলে ক্যারিয়ার সেরা ৭১ রান করেন শান্ত।

১৬তম ওভারে শান্তর মারমুখী ব্যাটিংয়ের পর ১৭ ও ১৮তম ওভারে যথাক্রমে ৬ও ৫ রান পায় বাংলাদেশ। এতে ১৮ ওভার শেষে বাংলাদেশের স্কোর ৪ উইকেটে ১৩১।
১৯তম ওভারে আফিফ হোসেনের ১টি ছক্কায় ১২ রান উঠে।  এতে ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৫০ রানের  পুঁজি পায় বাংলাদেশ।

২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৪৭ রান করে জিম্বাবুয়ে। ৪ ওভার করে বল করে তাসকিন ১৯ রানে ৩, মোসাদ্দেক ৩৪ ও মুস্তাফিজ ১৫ রানে ২ উইকেট নেন।

ফল : বাংলাদেশ ৩ রানে জয়ী। ম্যাচ সেরা : তাসকিন আহমেদ (বাংলাদেশ)। 

ঢাকানিউজ২৪.কম /

আরো পড়ুন

banner image
banner image