• ঢাকা
  • সোমবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ২০ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

ভোটারের উপস্থিতি একটু কম হলেও শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ 


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বুধবার, ০১ ফেরুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ০৫:০৫ পিএম
ভোটারের উপস্থিতি একটু কম হলেও শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ 
রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক শাহগীর আলম

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধিঃ ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ সরাইল-আশুগঞ্জে উপ-নির্বাচন কোনো ধরনের গোলযোগ ছাড়াই শান্তিপূর্ণভাবে হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক শাহগীর আলম। বুধবার সকাল সাড়ে ৮টায় এই আসনের উপ-নির্বাচনের মোট ১৩২টি কেন্দ্রে একযোগে ইভিএমে ভোট গ্রহণ শুরু হয়।

সকালে সরাইল অন্নদা সরকারি উচ্চবিদ্যালয় কেন্দ্র পরিদর্শনে আসেন রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. শাহগীর আলম। বুথ ও কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে তিনি সেখানে উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন।এ সময় তিনি বলেন, “সব ভাল হচ্ছে। সাড়ে ৮টায় ভোট শুরু হয়েছে। এখন পর্যন্ত আমরা কোথাও থেকে কোনো অভিযোগ পাইনি। ইভিএমে ভোট নতুন। একজন ভোটার হয়তো নিজের বুথে না গিয়ে অন্য বুথে চলে যাচ্ছেন। এই একটা অভিযোগ ছাড়া আর কোনো অভিযোগ নেই। প্রার্থীদের এজেন্টরাও আছেন।

“ভোটার উপস্থিতি কম নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে শাহগীর আলম বলেন, “দিনটা একটু মেঘলা। সেই হিসেবে ভোটারের উপস্থিতি একটু কম। আমরা আশা করছি, দিন গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে ভোটার উপস্থিতি বাড়বে।নির্বাচনে বিভিন্ন কেন্দ্রে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের তৎপর দেখা গেছে।ভোট কেন্দ্র পরিদর্শনে করতে এসে জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ শাখাওয়াত হোসেন বলেন, “কয়েকটি কেন্দ্র ঘুরে দেখলাম, সব জায়গায় শান্তিপূর্ণ অবস্থা বিরাজ করছে। আমরা আশা করি, ভোটাররা শান্তিপূর্ণভাবে নির্বিঘ্নে ভোট দিয়ে এই ভোট উৎসবকে উপেভোগ করতে পারবেন।

”এই আসনের উপ-নির্বাচনে প্রার্থীরা হলেন- স্বতন্ত্র প্রার্থী উকিল আব্দুস সাত্তার, জাতীয় পার্টির মো. আব্দুল হামিদ, জাকের পার্টির জহিরুল ইসলাম জুয়েল, স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. জিয়াউল হক মৃধা, আবু আসিফ আহমেদ।নির্বাচনকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে আন্দোলনের অংশ হিসেবে গত ১১ ডিসেম্বর বিএনপির অন্য সংসদ সদস্যদের মত উকিল আব্দুস সাত্তারও পদত্যাগ করেন। তবে ফাঁকা আসনে উপনির্বাচনে দাঁড়াতে দলের সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করেন তিনি। তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী ভাবা হচ্ছে আশুগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি আসিফকে, ভোটের দিনও যার হদিস মেলেনি। গত ২৭ জানুয়ারি থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী আবু আসিফ আহমেদ 'নিখোঁজ' আছেন বলে দাবি  পরিবারের। আসিফের সন্ধান ও সুষ্ঠু নির্বাচন চেয়ে মঙ্গলবার রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে লিখিত আবেদন করেন তার স্ত্রী মেহেরুন নিছা।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আরো পড়ুন

banner image
banner image