• ঢাকা
  • বুধবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৫ মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

মালদ্বীপে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ও শিশু দিবস পালন


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শুক্রবার, ১৮ মার্চ, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ০৪:৩৫ পিএম
অংশগ্রহণকারী শিশুদের উপিস্থিতিতে
কেক কাটেন যুব ও প্রতিমন্ত্রী, জাহিদ আহসান রাসেল, এমপি

মোহাম্মদ মাহামুদুল, মালদ্বীপ প্রতিনিধি:  জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০২ তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস পালন করেছে মালদ্বীপে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস। বাংলাদেশ দূতাবাসে , মালদ্বীপে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০২তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস ২০২২ উদযাপিত হয়।

দিবসটি উপলক্ষে ১৬ মার্চ ২০২২ তারিখ দূতাবাসে  শিশুদের জন্য চিত্রাংকন প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়।  অংশগ্রহণকারী শিশুদের উপিস্থিতিতে কেক কাটা সহ পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

সকালে দূতাবাসের  সন্মুখে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মাধমে দিনের কর্মসূচির সূচনা করা হয়। সান্ধ্যকালীন মুল  অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ  সরকারের মাননীয় যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী  মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল, বিশেষ অতিথি ছিলেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের  সচিব, মেসবাহ উদ্দিন এবং অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব  করেন ভারপ্রাপ্ত হাই রাষ্ট্রদূত,  মোঃ সোহেল পারভেজ।

 বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করার পর পবিত্র কুরআন তিলাওয়াতের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের  সুচনা করা হয়।  

দিবসটি উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী  এবং পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বানী পাঠ করে শোনানো হয়।  পরবর্তীতে শিশুদের সাথে বঙ্গবন্ধুর জীবনের উপর একটি ভিডিও চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

প্রধান অতিথি শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান,এবং ১৯৭৫ এর  ১৫ই আগস্ট এর আহত বঙ্গবন্ধুর সহধর্মিণী  বঙ্গমাতা  ফজিলাতুন্নেছা মুজিব সহপরিবারের সকল নিহত শহীদদের।  মুক্তিযুদ্ধের ৩০ লাখ শহীদদের ও সম্ভ্রম হারানো মায়েদেরকে, এবং শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন বীর  মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি।

তিনি বলেন, আজ বাঙালি জাতির জন্য আনন্দের দিন গর্বের দিন অহংকার এর দিন,আনন্দের দিন এই কারণে , এই দিনে জন্মগ্রহণ করেছিলেন আমাদের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। যিনি শত বাধাকে অতিক্রম করে একটি দেশকে স্বাধীন করেছিলেন।

তিনি বলেন,  ১৯৪৭ সালে ভাষা আন্দোলন ভাষা আন্দোলন সংগ্রাম পরিষদ গঠন। ৫৪ এর  যুক্তফ্রন্ট নির্বাচন , ৬৬ টির  ছয় দফা আন্দোলন,ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান ৭০ এর নির্বাচন  একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধ, প্রত্যেকটি সংগ্রাম আন্দোলন যার নেতৃত্বে আমরা স্বাধীন রাষ্ট্র পেয়েছি  তিনি  আর কেউ নয় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সকল স্বপ্ন পূরণের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে সোনার বাংলাদেশ  বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী  শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। প্রধান অতিথি বলেন, ৩২শ  মেগাওয়াট বিদ্যুৎ থেকে আজ ২৫ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন , যে কাজটি করেছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রায় এক লক্ষ ৭০  হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগে বাংলাদেশে পরমাণু বিদ্যুৎকেন্দ্র হতে যাচ্ছে  ।

তিনি প্রবাসীদের উদ্দেশ্যে বলেন,  আপনাদের পাঠানো রেমিট্যান্সে আমাদের দেশ এগিয়ে যাচ্ছে।  আপনারা প্রবাসের মাটিতে এমন ভাবে কাজ করবেন যাতে আমাদের দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট না হয়।

তিনি বলেন মালদ্বীপের ক্রিড়া  মন্ত্রী যখন আমাকে রিসিভ করেছে তখন তিনি বলেছেন আপনাদের দেশের মানুষের গুলো আমাদের দেশে অনেক উন্নয়ন এর ভূমিকা রাখছে তখন আমার গর্বে বুকটা ভরে গেছে। আমি শুনেছি মালদ্বীপের  মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন সরকারি অফিস-আদালত গুলোতে ৬০ জনেরও বেশি বাংলাদেশি চাকরি করেন। এইটা আমাদের দেশের জন্য গর্বের বিষয়।

মালদ্বীপের সরকারের আয়োজিত বিভিন্ন দেশের মন্ত্রী এবং খেলোয়াড়দের অ্যাওয়ার্ড  দেওয়ার অনুষ্ঠানে যোগ দিতে মালদ্বীপ সফর করছেন বাংলাদেশের ক্রিয়া ও যুব মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী, জাহিদ আহসান রাসেল, এমপি।

এছাড়াও প্রতিমন্ত্রী  তার ব্যক্তব্যে  আওয়ামি লীগ সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকাণ্ড গুলো তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি এবং সভাপতি তাদের মূল্যবান বক্তব্য প্রদান করেন। তারা বক্তব্যে মহান ভাষা আন্দোলন  হতে মুক্তিযুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর আত্মত্যাগ এবং ভূমিকার কথা  শ্রদ্ধার্ঘ্য চিত্তে স্মরণ করেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর  বিভিন্ন উন্নয়ন পরিকল্পনা এবং দেশের ক্রমবর্ধমান অগ্রগতি ও সমৃদ্ধিতে ভূমিকার কথা শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন।

করোনা মহামারীর কারণে সীমিত পরিসরে বিশিষ্ট প্রবাসী বাংলাদেশি ব্যবসায়ী, চিকিৎসক  এবং রাজনৈতিক  ব্যক্তিবর্গ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান শেষে কেক কাটার মধ্য দিয়ে কর্মসূচির পরিসমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

ঢাকানিউজ২৪.কম /

প্রবাস জীবন বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image