• ঢাকা
  • শনিবার, ২২ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০৪ ফেরুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

স্টেজ শো নিয়ে ব‍্যস্ত কণ্ঠশিল্পী রিয়া


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বুধবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ০৪:৫৭ পিএম
স্টেজ শো নিয়ে ব‍্যস্ত
কণ্ঠশিল্পী রিয়া

জাকির হোসেন আজাদী: স্টেজ শো নিয়ে তুমুল ব‍্যস্ত সময় পার করছেন  বতর্মান সময়ের প্রতিভাবান কণ্ঠশিল্পী নুসরাত জাহান রিয়া। তিনি টেলিভিশন বেতারেও গান করে থাকেন। কাজ করেন মৌলিক গান নিয়েও। আজ কথা হয় তাঁর সাথে। সেই সময় তিনি  তাঁর সঙ্গীত জীবনের নানা বিষয় তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, "শীতকালীন সময়ে বরাবরের মতোই এখন খুব স্টেজ প্রোগ্রামের চাপ আছে। এখন এই সময়টা স্টেজ শো নিয়েই তুমুল ব্যস্ত সময় পার করছি। দেশের বিভিন্ন জায়গায় স্টেজ শো করা হচ্ছে। তার মধ্যে আমার বৃহত্তর ময়মনসিংহ অঞ্চলে বেশি।

মৌলিক গান বিষয়ে তিনি বলেন, " আমার নিজের লেখা ও সুর করা ৪টি গান। তাছাড়া অন্যান্য গুণী সুরকার গীতিকার এর লিখায় সুরে আরো ৮টি গান করা হয়েছে। মোট ১২টি মৌলিক গান করা হয়েছে ফোক-দেশাত্ববোধক-আধুনিকসহ।

তিনি আরও বলেন, "সবশেষ আমার মৌলিক গানের ভোকাল দিয়েছি যেটা মিউজিক করছেন বাংলাদেশের সুনামধন্য মিউজিক কম্পোজার ইবরার টিপু ভাই। গানটির লিখা ও সুর আমার করা। আধুনিক একটি গান।"

কিভাবে গানের জগতে আসলেন এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, সে এক লম্বা ইতিহাস। ছোট্ট আকারে বলতে গেলে আমার বাবার মুখে গুনগুন করে একটি গান শুনতে পেলাম- "আমায় এতো রাতে কেনে ডাক দিলি"! হঠাৎ ই এক অন্যরকম ভালোলাগা কাজ করা শুরু হলো। তখন ক্লাস ৪এর ছাত্রি আমি। আব্বাকে বললাম আমি গান্টা পারি আব্বা। আম্মা আর আব্বাকে শুনাইলাম একটু মুখরাটা গানে! আমার বাবা বেশ প্রশংসা করলো এবং গানের গলাটা ভালো দেখে আমায় আমার মা খুব তাগিদ করে বল্লেন আমায় গানের স্কুলে ভর্তি করাবেন। এভাবেই স্কুলের একটি উপজেলা ভিত্তিক প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে জেলায় লোকসংগীত এ ১ম হয় তারপর আমার মা মনোস্থীর করলেন এবং আমায় শেরপুর জেলা পাতাবাহার খেলাঘর আসরে ভর্তি করালেন এবং এভাবেই আমার গানের যাত্রা শুরু।

গানের তালিম কার কাছে নিয়েছেন এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, "আমার জীবনের ১ম ওস্তাদ আশিকুর রহমান আশিক স্যার। উনি টাঙাইলের মানুষ শেরপুর  জেলা যুব উন্নয়নে কর্মরত অফিসার তিনি! উনার কাছেই গানের ১ম হাতেখড়ি। তারপর পাতাবাহার খেলাঘর আসরের সব শিক্ষকদের কাছে শিখা হয়! এখনো প্রতিনিয়ত গুণী মানুষদের সান্নিধ্যে শিখেই যাচ্ছি! কারণ সংগীত সাধনা আজিবন শিখেও শেষ করা সম্ভব না!"

গান নিয়ে তাঁর পরিকল্পনার কথা প্রসঙ্গে বলেন, " সংগীত আমার স্বপ্ন সংগীত আমার সাধনা! এই গান নিয়ে অনেক দূর যাওয়ার ইচ্ছা ও স্বপ্নের শেষ নেই। আমি সামনে আরো ভালো ভালো মৌলিক গান করতে চায় কারণ শিল্পীর প্রথম পরিচয় তার মৌলিক গানের পরিচিতি! তাছাড়াও বাংলা গান নিয়ে দেশের বাহিরেও সুযোগ হলে পরিবেশনার ইচ্ছা! সেইসাথে অনেকটাই আমার স্বপ্নের পূরন হয়েছে আমি RTV রিয়েলিটি শো ইয়াং স্টার সিজন ১ এর সেরা ৩জনের একজন। RTV- NTV- Asian TV- Bangla TV- BTV সহ বিভিন্ন চ্যানেলে গান করেছি! এশিয়ান লাইভে ৫বার লাইভ প্রোগ্রামের সুযোগ হয়েছে! তাই আমার ইচ্ছা আমার সংগীত টা এভাবেই এগিয়া যাক- আমার গান এবং আমার শেরপুর জেলাকে আমার গানের মাধ্যমে পরিচিত করানোয় আমার ইচ্ছা।

সবশেষে দর্শক শ্রোতাদের উদ্দেশ্যে তিনি  বলেন, মানুষের দোয়া ও ভালোবাসার জন্যই এতোটা পথ এগিয়ে আসা সম্ভব হয়েছে। তাই আমি অবশ্যই সবার আগে চাইবো আপনাদের দোয়া ও ভালোবাসা! সংগীত অংগনে যেনো নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে পারি।  আপনাদের ভালো ভালো গান উপহার দিতে পারি। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন।

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

বিনোদন বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image