• ঢাকা
  • শুক্রবার, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ০১ জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image

ভৈরবে মাদক বিক্রিতে বাধা দেয়ায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে হয়রানীর অভিযোগ


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ০৯ জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ০২:০১ পিএম
মুক্তিযোদ্ধা পরিবারকে হয়রানীর অভিযোগ
মুক্তিযোদ্ধা পরিবার

ভৈরব প্রতিনিধি, কিশোরগঞ্জ : গত ২৩ মে, ভৈরবে পৌর এলাকার আমলাপাড়া অবদার মোড় এলাকার  মৃত জসিম উদ্দীনের ছেলে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী পায়েল মিয়া এলাকার  বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় ভ্রাম্যমাণ মাদক বিক্রি করতে দেখে ফেলায়। ফিল্মি কায়দায় স্থানীয় অগ্নি বিণা বিদ্যানিকেতন এর অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র সাজিদকে এলোপাথারি আঘাত করে প্রাণে মেরে ফেলার চেষ্টা করে।

পরে সাজিদের মামা বীর মুক্তিযোদ্ধা বাচ্চু মিয়ার একমাত্র ছেলে মিলনকে জানালে মিলন এলাকার লোকজন নিয়ে ধরে ভৈরব থানা পুলিশকে অবগত করলে ভৈরব থানার এস আই মোঃ আবু সাঈদ সঙ্গীয় পুলিশ সদস্যদের নিয়ে ১০৯পিচ মাদকদ্রব্য ইয়াবা ট্যাবলেটসহ চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী পায়েল কে গ্রেফতার করে।

এ ঘটনার  সূত্রপাত ধরে,ভৈরব পৌর শহরের আমলা পাড়া এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা বাচ্চু মিয়ার একমাত্র ছেলে  মিলন মিয়া এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত জজ মিয়া নেতার ছেলে স্থানীয় বিদ্যুৎ অফিসের চাকরীজীবি মোঃ কায়সার আহমেদ পল্টনসহ স্কুল-কলেজের একাধিক ছাত্রদের বিরুদ্ধে দু'টি মিথ্যা মামলা দেয়া হয় বলে অভিযোগ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা বাচ্চু মিয়া ও অবসরপ্রাপ্ত সেনাকর্মকর্তা আবু কালামের  পরিবারের সদস্যরা। অবসরপ্রাপ্ত এ সেনাকর্মকর্তা জানায়,আমার ছেলে পায়েল কে মাদক বিক্রি করতে দেখে ফেলায় আমার ছেলেকে মারধর করে রক্তাক্ত করে। এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী পায়েল মিয়া উল্টো আমার নামে এবং আমার ছেলের নামে সম্পর্ন পরিকল্পিতভাবে মিথ্যা -বানোয়াট দু'টি মামলা করে হয়রানি করছে।

আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও স্থানীয় প্রশাসনের কাছে দাবি জানাচ্ছি সুষ্ট তদন্ত করে অচিরে যেন এ মিথ্যা মামলা থেকে আমি, আমার ছেলে এবং কমলমতি শিক্ষার্থীদের যেন অব্যহতি দেয়া হয়। এছাড়াও স্থানীয় পিডিপি অফিসের চাকরীজীবি বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত জজ মিয়া নেতার ছেলে কায়সার আহমেদ পল্টন বলেন, আমি একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান আমি কখনো অন্যায়কে ছাড় দেয় না।মাদক ব্যবসায়ীরা আমার ভাই -বোন হলেও তাদের বিরুদ্ধেও আমি রুকে দাঁড়াবো আজ আমি এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় মাদক ব্যবসায়ীর স্ত্রী তামান্না বেগম আমাকে মিথ্যা মামলা দিয়ে কুট কৌশলে আমার মান সম্মান ক্ষুন্ন করছে অচিরে এ মাদক ব্যবসায়ী এবং মিথ্যা মামলাবাজদের বিরুদ্ধে অতি শীঘ্রই আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

এছাড়াও একাত্তরের রণাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধা বাচ্চু বলেন, নয় মাস যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করেছি কিন্তু আজ আমি এবং আমার পরিবার এলাকার মাদক সম্রাটের কাছে জিম্মি আমার পরিবারকে মিথ্যা মামালা দিয়ে হেনস্তা করছে এ দুঃখ আমি কার কাছে বলবো।

চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী পায়েল মিয়া স্ত্রী-কে দিয়ে পরিকল্পিতভাবে মিথ্যা মামলা করিয়ে বিভিন্ন পত্র -পত্রিকার মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করছে।

ঢাকানিউজ২৪.কম / সোহানুর রহমান(সোহান)/কেএন

অপরাধ বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ

banner image
banner image