• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৮ জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • সরকারি নিবন্ধন নং ৬৮

Advertise your products here

banner image
website logo

শ্রীমঙ্গলে ‘অধ্যায়ের পিঠা উৎসব ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান 


ঢাকানিউজ২৪.কম ; প্রকাশিত: শনিবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১২:২৬ পিএম
শ্রীমঙ্গলে ‘অধ্যায়ের
পিঠা উৎসব ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান 

মো: জহিরুল ইসলাম, স্টাফ রিপোর্টার:  শীতে পিঠা বাঙালির জীবন ও সংস্কৃতির এক অবিচ্ছেদ্য অংশ। শ্রীমঙ্গলে মাঘের শীতে পিঠা উৎসবের আয়োজন করেছে “অধ্যায়”। বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়নরত শ্রীমঙ্গলের মননশীল শিক্ষার্থীদের যুব-সংগঠন “অধ্যায়” এর তৃতীয় বর্ষের আয়োজন ছিল এটি। 

নাচ,গান, আর আবৃত্তি, ব্যান্ড শো বিকাল থেকে জেলা পরিষদ মাঠে মুখরিত ছিলো বাংলার ঐতিহ্যবাহি গানের আসরে। কানায় কানায় পূর্ণ ছিলো আগত দর্শনার্থী ও শিশু- কিশোরদের পথচারণায়। 

পিঠা উৎসবে যে সকল পিঠা ছিলো - ভাপা পিঠা,  চিতই পিঠা, ঝাল পিঠা, মালপোয়া, মেড়া পিঠা, মালাই পিঠা, মুঠি পিঠা, আন্দশা, কুলশি, কাটা পিঠা, কলা পিঠা, খেজুরের পিঠা, ক্ষীর কুলি, গোকুল পিঠা, গোলাপ ফুল পিঠা, লবঙ্গ লতিকা, রসফুল পিঠা, সুন্দরী পাকান, সরভাজা, পুলি পিঠা, পাতা পিঠা, পাটিসাপটা, পাকান পিঠা, নারকেলের সেদ্ধ পুলি, নারকেল জিলাপি, তেজপাতা পিঠা, তেলের পিঠা, তেলপোয়া পিঠা, চাঁদ পাকান পিঠা, ছিট পিঠা, পানতোয়া, জামদানি পিঠা, হাঁড়ি পিঠা, ঝালপোয়া পিঠা, ঝুরি পিঠা, ছাঁচ পিঠা, ছিটকা পিঠা, চিতই পিঠা, দুধ চিতই, বিবিখানা, চুটকি পিঠা, চাপড়ি পিঠা, ঝিনুক পিঠা, সূর্যমুখী পিঠা, ফুল পিঠা, বিবিয়ানা পিঠা, সেমাই পিঠা, নকশি পিঠা, নারকেল পিঠা, নারকেলের ভাজা পুলি, দুধরাজ, ফুলঝুরি পিঠাসহ আরও বাহারি সব নামের পিঠা। এই সব পিঠা খেতে হাজারও লোকের ঢল নামে পিঠা উৎসবে।  

শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) শ্রীমঙ্গল উপজেলার ভানুগাছ রোডস্থ জেলা পরিষদ অডিটোরিয়াম প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয় এই উৎসব। সকাল ১১ টা থেকে শুরু  হয়ে চলে রাত অবধি। ছিল নানা বর্ণ ও সাজের পিঠাপুলি, হালকা খাবারসহ নানা ধরনের বিক্রয় স্টল। এছাড়াও উৎসব আনন্দে সময় কাটানোর জন্য ছিল শ্রীমঙ্গলের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং সাংস্কৃতিক সংগঠনের পরিবেশনায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্টান।

শ্রীমঙ্গল জেলা পরিষদ মাঠ প্রাঙ্গণে দিনব্যাপী পিঠা উৎসবের  অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী সরদার মোস্তফা শাহীন, শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আবু তালেব, সহকারী কমিশনার(ভূমি) সন্দ্বীপ তালুকদার, শ্রীমঙ্গল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিনয় ভূষণ রায়, তদন্ত ওসি মো:  আমিনুল ইসলাম, শ্রীমঙ্গল উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মিতালি দত্ত, লেখক কবি দ্বীপেন্দ্র ভট্টাচার্য, জেরীন চা বাগানের ডেপুটি জেনারেল ম্যানাজার সেলিম রেজা, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী শের আলী হেলাল সহ  প্রমূখ।

আমন্ত্রিত অতিথিরা বিভিন্ন স্টল পরিদর্শন করেন। এ সব স্টলে রকমারি পিঠার পসরা সাজিয়ে রাখা এবং বেশির ভাগই স্টলে উৎসব প্রাঙ্গনে পিঠা তৈরি করা হয়।  

উদ্বোধনের পর থেকে প্রতিটি স্টলেই ছিল দর্শনার্থীদের ভিড়। দেশীয় সংস্কৃতিকে ধারণ করা এই পিঠা উৎসবে এসে তারা বিভিন্ন স্বাদের পিঠা উপভোগ করেন। পিঠার স্বাদ উপভোগের পাশাপাশি দর্শনার্থীদের জন্য দিনব্যাপী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ছিল উপছে পড়া ভিড়। এর মধ্যে সেরা হয়েছে 'ঘরোয়া কিচেন' নামক স্টলটি।

পিঠা উৎসবে আসা সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জয়শ্রী চৌধুরী শিখা বলেন, ‘পিঠা উৎসব আমাদের গ্রাম বাংলার হাজার বছরের ঐতিহ্য। ঘরে ঘরে পিঠা উৎসব হতো। যদিও বর্তমান সময়ে পিঠার ঐতিহ্য ম্লান হতে যাচ্ছে। পিঠা উৎসবের মতো দেশীয় সংস্কৃতি চর্চায় অংশ নিয়ে এই ঐতিহ্যকে টিকিয়ে রাখতে অধ্যায় এর ন্যায় নতুন প্রজন্মকে আরো এগিয়ে আসতে হবে।’

অধ্যায় সংগঠনের আহ্বায়ক ভূপেন সেন বলেন, বাংলাদেশ ‘ষড়ঋতুর দেশ , ষড়ঋতুর শীতকালে প্রধান আকর্ষণ হচ্ছে পিঠা উৎসব। এই পিঠা উৎসবকে কেন্দ্র করে আমরা তৃতীয়বারের মতো এবারও আয়োজন করেছি পিঠা উৎসব ২০২৪।

তিনি আরও বলেন, করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘ দুইবছর আমরা পিঠা উৎসব আয়োজন করতে পারিনি। এসব আয়োজন অনেক কষ্টসাধ্য, তারপরও আমরা সাধ্যমতে চেষ্টা করেছি। আমরা একঝাঁক উদ্যোগী শিক্ষার্থী মিলে এবারের আয়োজনটা আপনাদের সামনে তুলে ধরতে পেরেছি। 

অধ্যায় সংগঠনের সদস্য প্রজ্ঞা পারমিতা চৌধুরী বলেন, ‘তৃতীয়বারের মতো অধ্যায়ের পিঠা উৎসব আমরা আয়োজন করেছি। আমরা সকলে বিভিন্ন কলেজ ,ইউভার্সিটিতে শিক্ষার্থী। এই পিঠা উৎসবে আমরস একত্রিত হই এই দিনে এজন্য আমরা সবাই খুবই আনন্দিত, পরিবারের সবাই এই আনন্দে অংশগ্রহণ ও উপভোগ করছেন। পিঠা উৎসবে অনেক দর্শক সমাগম ঘটেছে।
 

ঢাকানিউজ২৪.কম / কেএন

আরো পড়ুন

banner image
banner image